Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

কমলার খোসার উপকারের কথাতো অনেক শুনেছেন এবার জানুন কলার খোসার গুন

।। প্রথম কলকাতা ।।

শরীরে এনার্জি জোগাতে জুড়ি মেলা ভার এই কলার। রয়েছে গ্লুকোজ, ফ্রুকটোজ, সুক্রোজ সহ বিভিন্ন পুষ্টিকর উপাদান। কিন্তু আপনি কি জানেন? কলার খোসাতেও রয়েছে কলা সমান শক্তি। যা যোগান দেবে বিভিন্ন ওষুধি গুনের। তাই দ্বিতীয়বার কলা খেয়ে খোসা ফেলে দেওয়া আগে দশবার ভাববেন।

ত্বকের তারুণ্য ধরে রাখে

ত্বকে কোমলতা আনতে বেশ কার্যকরী এই কলার খোসা। খোসার ভেতরের অংশ মুখে রেখে কিছুক্ষণ রেখে দিন। তারপর জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। খোসার মিনারেল এবং ভিটামিন ময়েশ্চারকে আটকে রেখে ত্বকের শুস্কতা দূর করে।

মুক্ত হাসি দাঁতের মাজন

দাঁত সাদা রাখতে কলার খোসা কিছুক্ষন দাঁতে ঘষুন। তারপর কিছুক্ষণ রেখে ব্রাশ দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। দাঁতে হলদেটে ভাব থাকলে এই পদ্ধতি নিয়মিত মেনে চলুন।

ব্রণ দূর করতে

মুখের ব্রণ দূর করতে কলার খোসা অত্যন্ত উপকারী। যাদের ব্রণের সমস্যা খুব বেশি রয়েছে তারা মুখে ভালো করে কলার খোসা ঘষে 2/3 ঘন্টা রেখেদিন। তারপর জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে 3 থেকে 4 বার এই পদ্ধতি মেনে চলুন।

দেহে পটাসিয়ামের উন্নতি ঘটায়

কলার খোসার পর্যাপ্ত পটাশিয়াম আপনার পেশির গঠন, কার্বোহাইড্রেট ভাঙতে, হৃদপিণ্ড এবং শারীরিক ভারসাম্য বজায় রাখতে সাহায্য করে।

ব্যাথা নিরাময় করে

কপালে অথবা ব্যথার জায়গায় কিছুক্ষণ কলার খোসা রাখলে মাথাব্যথা বা অন্যান্য কোনো ব্যাথা থেকে নিরাময় পাওয়া যায়।

চুলকানি ও ফোলা কমায়

কলার খোসা ভিন্ন জাতের পতঙ্গের কামড় এবং ছারপোকার সংক্রমণ থেকে রক্ষা করে। এছাড়া এর পলিস্যাচারাইড ক্ষত থেকে ফ্লুইড শুষে নেয় এবং চুলকানি ও ফোলা কমায়।

এছাড়া এর কিছু উল্লেখযোগ্য গুনাগুন

কলার খোসায় রয়েছে দ্রবণীয় ফাইবার এবং অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট। তাই ডাক্তারেরা অনেক সময় কলার খোসা খাওয়ার পরামর্শ দেন। কলার খোসায় থাকা ট্রিপটোফোন শরীরের মেজাজ এবং ঘুম ঠিক রাখতে সাহায্য করে।