Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

কী ভাইরাস আবিষ্কার করেছে বিজেপি ? খোলাসা করলেন দিলীপ ঘোষ

1 min read

।। সুদীপা সরকার ।।

২০২১ এ নতুন বছর নতুন আশা নতুন সরকার। বাংলার সর্বাঙ্গীণ বিকাশ হবেই। নতুন সালের নতুন জীবন শুরু হচ্ছে।করোনার ভ্যাকসিন নিয়ে নিশ্চিত ভাবে আমি কিছু বলতে পারব না কিন্তু তৃণমূলের বিদায়ের ভ্যাকসিন যে চলে এসেছে তা তিনি বলেই ফেললেন।করোনার চেয়ে ভয়ঙ্কর ভাইরাস তৃণমূল কংগ্রেস। তৃণমূল কংগ্রেসের ভ্যাকসিন আমরা আবিষ্কার করে ফেলেছি আর সেটা আগামী মে মাসের কুড়ি তারিখের পরে অবশ্যই চলে যাবে। পশ্চিমবাংলায় টিএমসি বলে কোন ভাইরাস থাকবে না। আজ নন্দীগ্রামের বিজেপির সভা থেকে তৃণমূল কে এইভাবেই তীব্র আক্রমণ শানালেন বিজেপি র রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ (Dilip Ghosh)।

তাঁর দাবি ২০০ আসন নিয়ে আমাদের মুখ্যমন্ত্রী নবান্নে বসবে। নন্দীগ্রামের মানুষের উৎসাহ উদ্দীপনা প্রমাণ করে দিয়েছে টিএমসির যাবার দিন চলে এসেছে। নতুন সরকার তৈরি করবে ভারতীয় জনতা পার্টি। বাংলায় সোনার বাংলা তৈরি হবে বলে তিনি জানান। পাশাপাশি তিনি অভিযোগ তোলেন নন্দীগ্রামের শহীদেরা অবহেলিত উপেক্ষিত।তাই তারা ঠিক করেছেন যেখানে রক্ত দিয়ে ঘাম ঝরিয়ে টিএমসি দলটা কে তৈরি করেছিলেন সেখানে টিএমসি তাদের মর্যাদা দেয় নি তাই তারা ভারতীয় জনতা পার্টির সাথে থাকবেন। ২০২১ এ বদল হবে বারবার দাবি করে আসছেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ (Dilip Ghosh)।

আরো পড়ুন :মানভঞ্জন পর্ব শেষ, সোমবার মিছিলে হাঁটবেন শোভন-বৈশাখী

আজ ও নন্দীগ্রামের সভা থেকে এমনটাই দাবি করলেন তিনি। পদ্ম শিবির বাংলা দখল করতে মরিয়া। তাই পালা বদল করে করে অমিত শাহ জেপি নাড্ডা রাও আসছেন। রাজ্যজুড়ে এখন ভোটের দামামা। এই পরিপ্রেক্ষিতে দিলীপ ঘোষের দাবি বিজেপি ২০০ আসন নিয়ে বাংলার ক্ষমতায় আসবে ই। তার এই মন্তব্য বঙ্গ রাজনীতিতে বেশ তাৎপর্যপূর্ণ বলেই মনে করছে রাজনৈতিক মহল। তিনি আজও কটাক্ষের সুরে বললেন ভ্যাকসিন নিয়ে তিনি নিশ্চিতভাবে কিছু না বলতে পারলেও তৃণমূলের বিদায়ের ভ্যাকসিন যে বিজেপি (bjp) তৈরি করে ফেলেছে তা তিনি আজ আব ভাবেও বুঝিয়ে দিলেন।

বিধানসভা নির্বাচনের আগে ক্রমাগত দলবদল নিয়ে তোলপাড় পশ্চিমবঙ্গের রাজনৈতিক মহল। একের পর এক তৃণমূলের নেতা নেত্রীরা দল ছেড়ে বিজেপিতে চলে যাচ্ছে। যা নিয়ে রীতিমতো চাপে আছে তৃণমূল। আবার অন্যদিকে বিজেপি নেতাদের ঝাঁঝালো আক্রমণে দুমড়ে-মুচড়ে পড়ছে তৃণমূল কংগ্রেস এমনটাও মনে করছেন অনেকে।তার সাথে আজ নন্দীগ্রামের শুভেন্দু দিলীপের সভায় উপচে পড়া ভিড় তাদের আত্মবিশ্বাস কে যেন ফের বাড়িয়ে তুলল সে বিষয়ে আর কোনো সন্দেহ রইল না।