Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

শীত থাকতে ঘুরে আসুন চিল্কিগড় রাজবাড়ী, সাক্ষী থাকুন মন্দির মোড়া এক সুন্দর পরিবেশে

।। প্রথম কলকাতা ।।

অফিস, কলেজ স্কুল এসব তো আছেই। এর ফাঁকেই ধারে পিঠে ঘুরে এলে কেমন হয়? ঠিক এইরকমই এক ধারে পিঠে জায়গার হদিস পেয়েছি আমরা, নাম চিল্কিগড় রাজবাড়ী। ঝাড়গ্রাম শহর থেকে ১৩ কিলোমিটার দূরে জামবনি ব্লকে পরে এই রাজবাড়ী। চিল্কিগড় নামটা একটু অন্যরকম লাগছে কি! আসলে জামবনির রাজা ছিলেন ভূমিপুত্র সামন্ত রাজা গোপীনাথ সিংহ আর চিল্কিগড় ছিল তার রাজধানী। এই রাজবাড়ীর একটি উল্লেখযোগ্য ইতিহাসও রয়েছে। ১৭৬৯ সালে চুয়াড় বিদ্রোহ চলাকালিন তৎকালীন রাজা জগন্নাথ সিংহ এই রাজবাড়ী থেকেই ধল বিদ্রোহ ঘোষণা করেন, তবে শেষকালে ইস্ ইন্ডিয়া কোম্পানি এই বিদ্রোহ দমন করতে সফল হয়। সেসব কথা থাক এখন।

মূলত এই রাজবাড়ীর অন্যতম বৈশিষ্ট হল তার বিশাল বড় তোরণদ্বার আর ডুলুং নদীর তীরে অবস্থিত এই রাজবাড়ীর এক অপূর্ব কনকদুর্গা মন্দির। স্থাপত্যে ব্রিটিশ এবং মুঘলদের সাথে সমান ভাবে ফুটে উঠেছে বাংলা রীতির কারুকার্য। বর্তমানে সম্পূর্ণ ধ্বংসপ্রাপ্ত না হলেও এখনও মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়ে রয়েছে ৩০০ বছরের এই রাজবাড়ী।
এই রাজবাড়িতে পৌঁছতে হলে আপনি ঝাড়গ্রাম স্টেশনে নেমে টোটো করে আসতে পারেন। আর যদি পকেটের ওজন কমাতে চান তাহলে নিজস্ব গাড়ি করে অথবা কোনো গাড়ি ভাড়া করে আসতে পারেন। বর্তমানে এই জায়গার আসে পাশে কিছু সুন্দর পার্কও তৈরি হয়েছে যা আপনার দৃষ্টি আকর্ষণ করতে বাধ্য। এছাড়া রাজবাড়ী থেকে কিছুটা এগিয়ে ডিয়ার পার্ক যা এখন জঙ্গলমহল জুলোজিক্যাল গার্ডেন নামে পরিচিত একটি চিড়িয়াখানা তৈরি হয়েছে।