Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

ভারতবর্ষের রাজনীতি থেকে তৃণমূল দলটা অবলুপ্ত হয়ে যাবে কটাক্ষ মুকুলের

1 min read

।। সুদীপা সরকার ।।

বাংলায় কোন আইন শৃঙ্খলা নেই। বাংলায় বিভিন্ন এলাকায় এলাকায় বিজেপি কর্মীদের একটাই অভিযোগ তাদের মিথ্যে মামলায় জড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে। ভারতীয় জনতা পার্টির কর্মীদের মিথ্যে মামলায় জড়িয়ে দেওয়া হচ্ছে তার ভুক্তভোগী আমিও।আজ বিজেপির কার্যালয় যোগদান মেলা অনুষ্ঠান থেকে এমনটাই অভিযোগ তুললেন মুকুল রায় (Mukul Roy)।তিনি জানান আইনজীবীদের সেলে ২০০ জন আজ যোগদান করেছেন । মুকুল রায়ের দাবি তৃণমূল কংগ্রেস নামে আগামী দিন কোন দল থাকবে কিনা সন্দেহ রয়েছে।


আগামী কয়েক দিনের মধ্যেই দলের অস্তিত্ব চলে যাবে ভারতবর্ষের রাজনীতি থেকে তৃণমূল দলটা অবলুপ্ত হবে। তাই আগামী বিধানসভা নির্বাচনে দলীয় কর্মীদের ঐক্যবদ্ধ হয়ে লড়ার বার্তা দেন মুকুল রায়। তৃণমূল নেত্রী কাকলি ঘোষ দস্তিদার অভিযোগ করেছিলেন বাংলায় ভোট চাইতে আসছে বিজেপির পর্যটকের দল। এর পাল্টা জবাবে আজ মুকুল রায় (Mukul Roy) বলেন মন্ত্রী তো দিল্লি থেকেই আসবেন। পশ্চিমবঙ্গ ভারতবর্ষের অঙ্গরাজ্য তাই সবাই আসছে বক্তব্য রাখছেন। এছাড়াও কাকলি ঘোষ দস্তিদার বলেছিলেন বিজেপির লক্ষ অর্থনীতি চাঙ্গা করা নয় রাজনীতি করাই একমাত্র বিজেপির লক্ষ্য। এর পরিপ্রেক্ষিতে মুকুল রায় বলেন যারা অর্থনীতির কথা বলছেন তারা গত ১০ বছরে বাংলার মানুষের জন্য কি উপকার করেছে এত বিজনেস সামিট হয়েছে তাতে কত টাকা খরচ হয়েছে একটা শ্বেতপত্র প্রকাশ করতে বলুন তৃণমূল কংগ্রেসকে।

আরো পড়ুন :লক্ষ্মণ শেঠ- কিষেণজিদের সোজা করেছি, ‘রাবণ’দের হুঁশিয়ারি শুভেন্দুর

তৃণমূলের রক্তক্ষরণ শুরু হয়ে গিয়েছে এই নির্বাচনের পর আর দল তার অস্তিত্ব থাকবে না। পাশাপাশি উত্তরবঙ্গে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় যাওয়া নিয়ে কটাক্ষের সুরে মুকুল রায় বলেন তৃণমূল কংগ্রেস অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় কে যত ব্যবহার করবে তত ই ভালো হবে। সাংবাদিক সম্মেলন থেকে আজ মুকুল রায় দাবি জানিয়ে বলেন দেওয়াল লিখন পড়ুন। দিওয়ালে কি লেখা আছে। এ বারের দেওয়ালে লেখা আছে তৃণমূল সরকার টাই আর থাকবে না‌। সেটার জন্য অপেক্ষা করুন।লক্ষ্মীরতন শুক্লা বিজেপিতে যোগদান করতে পারেন এই প্রসঙ্গে তাঁকে জিজ্ঞাসা করা হলে মুকুল রায় (Mukul Roy) বলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের দলের মতো এটা ক্লাব নয় ভারতীয় জনতা পার্টির নিয়ম-নীতি আছে দল সিদ্ধান্ত নেবে।

আবার গতকাল বিজেপির রোড শো তে শোভন চট্টোপাধ্যায় বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়ের না থাকার বিষয়ে স্পষ্ট জানিয়ে দেন বিড়ম্বনায় এখন সবচেয়ে বেশি পড়তে হচ্ছে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কে। তাঁর দল থেকে নেতা-মন্ত্রীরা একে একে বেরিয়ে যাচ্ছে। বিধানসভা নির্বাচন যতই এগিয়ে আসছে ততই রাজ্য রাজনীতির পারদ চড়ছে। চলছে একে অপরকে চ্যালেঞ্জ ছোড়াছুড়ি। তবে আজ সাংবাদিক সম্মেলন থেকে আবারও মুকুল রায় তৃণমূল কংগ্রেসের দিকে চ্যালেঞ্জ ছুড়ে বুঝিয়ে দিলেন বাংলা দখল এবার বিজেপি করবে।