Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

মুখ্যমন্ত্রী ভোট সন্ত্রাসে প্ররোচনা ছড়াচ্ছেন, কমিশনে গেল বিজেপি

।। বাপি মণ্ডল ।।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে ভোট সন্ত্রাসে প্ররোচনা ছড়ানোর অভিযোগ তুলে কমিশনের দ্বারস্থ বিজেপি। বুধবার দলের অন্যতম মুখপাত্র শিশির বাজোরিয়ার নেতৃত্বে বিজেপির প্রতিনিধি দল কমিশনে যায়। পরে সাংবাদিক বৈঠকে শিশির সাফ বলেন, ‘মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ভোট সন্ত্রাসে প্ররোচনা ছড়াচ্ছেন। তাঁকে এখনই কমিশনের আটকানো উচিত।’

রাজ্যের প্রথম তিন দফা নির্বাচনে রক্তপাত আটকানো যায়নি। তৃতীয় দফায় ব্যাপক গোলমাল হয়েছে। চতুর্থ দফার ভোটগ্রহণের আগে সতর্ক সব পক্ষই। তারই মধ্যে উত্তরবঙ্গের কোচবিহারে নির্বাচনী জনসভায় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের একটি বক্তব্যের বিরুদ্ধে বিজেপি কমিশনে নালিশ জানাল। দলের অন্যতম মুখপাত্র শিশির বলেন, ‘কোচবিহারের সভায় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সিআরপিএফ জওয়ানদের আটক করতে বলছেন।

আরো পড়ুন : মেলা নিয়ে দড়ি টানাটানি ঠাকুরবাড়ির দুই শরিকের, বিভ্রান্ত মতুয়ারা

তারপর বুথ দখল করে ভোট লুঠের ইঙ্গিত দিচ্ছেন। কী ভাবে সেটা করতে হবে, তার গাইড লাইনও মুখ্যমন্ত্রী বলে দিচ্ছেন। আমরা মনে করি, মুখ্যমন্ত্রীর এই বক্তব্যে সুস্থ ভোট প্রক্রিয়া বিঘ্নিত হবে। তাই অবিলম্বে কমিশনের উচিত, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে সেন্সর করা। না হলে গোলমাল বেড়ে যাবে।’

শিশির আরও বলেন, ‘আমাদের চুঁচুড়া বিধানসভার প্রার্থী লকেট চট্টোপাধ্যায়ের চিফ ইলেকশন এজেন্টকে গভীর রাতে ফোন করে হুমকি দেওয়া হয়েছে। আমরা অনুসন্ধান করে জেনেছি, যিনি হুমকি দিচ্ছেন, তিনি তৃণমূলের এক ডাকসাইটে নেতার সহচরী। মহিলা প্রার্থীদের নিরাপত্তার স্বার্থে আমরা ব্যবস্থা নেওয়ার আবেদন জানিয়েছি।’ দলীয় প্রার্থী পাপিয়া অধিকারীর উপর হামলার ঘটনায়ও বিজেপি কমিশনে তদন্তের আবেদন জানিয়েছে।