Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

রাজনৈতিক সংঘর্ষে রণক্ষেত্র চেতলা, আক্রান্ত রুদ্রনীল

1 min read

।। প্রীতম সাঁতরা ।।

ফের তৃণমূল-বিজেপি রাজনৈতিক সংঘর্ষের অভিযোগ। তাও আবার খাস কলকাতায়। ঘটনায় ভবানীপুরের বিজেপি প্রার্থী রুদ্রনীল ঘোষ আক্রান্ত হয়েছেন বলেও অভিযোগ। তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দোপাধ্যায়ের গড় হিসেবে পরিচিত কলকাতার ভবানীপুর। বিধানসভা নির্বাচনে বহু আলোচিত এই কেন্দ্র থেকে এবার টিকিট পেয়েছেন শোভনদেব। অন্যদিকে বিজেপির হয়ে ভোটে লড়বেন টলিউড তারকা রুদ্রনীল ঘোষ।

জানা গিয়েছে, গতকাল রাতে তিনি এবং তাঁর দলের কিছু লোকজন ব্যস্ত ছিলেন দলের কাজে। প্রচার থেকে ফিরছিলেন রুদ্রনীল। তখনই তাঁর এবং বিজেপির কর্মী-সমর্থকদের ওপর তৃণমূলের সমর্থকরা হামলা চালায় বলে অভিযোগ করেছেন বিজেপির তারকা প্রার্থী। তিনি এও দাবি করেছেন, এই হামলায় দলের কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে ১৫ জন জখম হয়েছেন।

অভিযুক্তদের হাতে হাতে আগ্নেয়াস্ত্র এবং বোমা ছিল বলেও অভিযোগ তুলেছেন রুদ্রনীল। সংবাদমাধ্যমে তিনি বলেছেন, কার্যত ভাগ্যের জোরে রক্ষা পাওয়া গিয়েছে হামলার মধ্যে থেকে। সাধারণ মানুষ, এলাকার মহিলাদের তৎপরতায় উদ্ধার পেয়েছেন তাঁরা। ঘটনার প্রতি ফিরহাদ হাকিমের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছেন রুদ্রনীল। তাঁর ধারণা, উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে ভোটে জয়লাভ করতে চাওয়ার জন্যই এই ধরণের ঘটনার পরিকল্পনা করেছে তৃণমূল।

করাও কারও অভিযোগ, ২০০-২৫০ জন এই হামলার ঘটনার সঙ্গে যুক্ত ছিল। রুদ্রনীল আরও বলেছেন, পাড়ায় বিজেপির জনপ্রিয়তা বাড়তে থাকার কারণে দমন কার্যে নামতে চাইছে শাসক দল। পাড়ার কেউ অন্য কোনও দলের হয়ে কাজ করতে চাইলে তাকে প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি দেওয়া হয়েছে বলেও অভিযোগ।

এলাকার অভাব বা অভিযোগের কথা যাতে প্রকাশ্যে না আসে সে কারণে এই রাজনৈতিক সংঘর্ষ বা উত্তেজনা বলে ধারণা গেরুয়া শিবিরের তারকা প্রার্থীর। তিনি জানিয়েছেন, ঘটনাস্থলে তৃণমূলের পতাকা, ব্যানার ইত্যাদি অক্ষত থাকলেও, প্রচার কাজে বিজেপিকে বাধা দেওয়ার চেষ্টা চলছে পুরোদমে। বিধানসভার ভোট যন্ত্রে সাধারণ মানুষ এর উত্তর দেবেন বলে তিনি আশা করছেন।