উচ্চমাধ্যমিকে ৪৯৮ পেয়ে রাজ্যে সম্ভাব্য দ্বিতীয় বীরভূমের রৌনক সাহা

1 min read

।। হিমাদ্রি মন্ডল, বীরভূম ।।

পূর্ব ঘোষণা মত শুক্রবার নির্ধারিত সময়ে উচ্চমাধ্যমিকের পরীক্ষার ফলাফল ঘোষণা করা হয় উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদের তরফ থেকে। উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদের সভানেত্রী মহুয়া দাস জানান, চলতি বছর যেহেতু করোনা ভাইরাসের প্রকোপের কারণে তিনটি পরীক্ষা নেওয়া সম্ভব হয়নি তাই মেধা তালিকা প্রকাশ করা হচ্ছে না। তবে মেধাতালিকা প্রকাশ করা না হলেও এবছর পরীক্ষা ৫০০-এর ৪৯৯ সর্বোচ্চ নম্বর বলে জানান তিনি। আর এই নম্বরের তালিকা প্রকাশ্যে আসতেই জানা যায় বীরভূমের শান্তিনিকেতনের উচ্চমাধ্যমিক পড়ুয়া রৌনক সাহা পেয়েছে ৪৯৮।

সে রাজ্যের সম্ভাব্য দ্বিতীয়।রৌনক সাহা বোলপুরের নব নালন্দা শান্তিনিকেতন উচ্চ বিদ্যালয়ের পড়ুয়া। তার প্রাপ্ত নম্বর হলো ৪৯৮। শতাংশের বিচারে নম্বর ৯৯.৬০%। অন্যদিকে রাজ্যের সর্বোচ্চ নম্বরের অধিকারীরা পেয়েছেন ৪৯৯। তাদের শতাংশের বিচারে নম্বর ৯৯.৮০%। আর বীরভূমের রৌনক সাহার প্রাপ্ত নম্বর ৪৯৮ শুনেই খুশির হাওয়া তার পরিবার ও স্কুলের শিক্ষক শিক্ষিকাদের চোখে মুখে।

রৌনক সাহা এর আগেও মাধ্যমিক পরীক্ষায় রাজ্যে ষষ্ঠ স্থান অধিকার করেছিল। এরপর আবার উচ্চমাধ্যমিকে আরও ভালো ফলাফল করার পর সে জানিয়েছে, “খুবই ভালো লাগছে। উচ্চমাধ্যমিকে ভালো ফলাফল হবে এমনটা আশা করলেও আশার থেকেও বেশি ভালো ফলাফল হয়েছে উচ্চমাধ্যমিকে।” এত সুন্দর ফলাফলের পর পড়াশুনা নিয়ে সে জানায়, “দিনে আট থেকে দশ ঘন্টা পড়াশোনা করতাম। তবে এর থেকে বেশি ফলাফল আশা করিনি। বরং কম হতে পারত। খুব ভালো লাগছে।”

রাজ্যে সম্ভাব্য দ্বিতীয় এবিষয়ে রৌনক জানায়, “আমি ওয়েবসাইটে রেজাল্ট দেখলাম। সেখানে দেখলাম ৪৯৮ পেয়েছি। যেহেতু এবছর মেধাতালিকা প্রকাশ হয়নি তাই সাংবাদিক বৈঠকে ৪৯৯ নম্বর সর্বোচ্চ বলা হয়। সেই হিসাবে ৪৯৮ নম্বরকে দ্বিতীয় হিসাবে ধরে নিচ্ছি।” পড়াশুনা বাদেও রৌনক টিভি দেখতে এবং গল্পের বই পড়তে ভালোবাসে বলে জানিয়েছে।