সুঠাম স্বাস্থ্য ও নিরামিষ খাদ্যে, কিভাবে জানুন

।। প্রথম কলকাতা ।।

আমিষ খাদ্য থেকে শরীরের বিপাকক্রিয়ার বহুপ্রকার ক্ষতিকর পদার্থ নির্গত হয়।আমিষ খাদ্য অনেক সময় হজমের সমস্যা ও তৈরি করে।আমিষ খাদ্যের প্রোটিনের কোষ্ঠকাঠিন্য তৈরি হয়।

নিরামিষাশীদের প্রোটিনের চাহিদা মেটাতে বিভিন্ন প্রকার ডাল সোয়াবিন জাতীয় দ্রব্য যেমন সয়ামিল্ক মনির দুধ থেকে তৈরি পনির ইত্যাদি গ্রহণ করা দরকার।বিভিন্ন প্রকার মিনারেল এর অভাবজনিত সমস্যা যেমন আয়রনের ঘাটতি পূরণ করতে ডুমুর কাঁচালঙ্কা পালংশাক বেদনা ইত্যাদি খাওয়া উচিত।

আবার
বিভিন্ন প্রকার ভিটামিনের অভাবজনিত সমস্যা দূর করতে শাকসবজি ফলমূল খাওয়া উচিত।

ক্যালসিয়ামের অভাব দূর করতে দুগ্ধজাত দ্রব্য ছানা পনির ইত্যাদি গ্রহণ করতে হবে।

ডায়াবেটিস রোগীদের ক্ষেত্রে খাদ্যতালিকায় শাকসবজি দানাশস্য ফল বেছে নিতে হবে।

নিরামিষ খাদ্য প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি ও স্বাস্থ্যের উন্নতিতে সাহায্য করে।
এছাড়াও নিরামিষ খাদ্যের উপাদান গুলি শরীরের পুষ্টির যোগান অটুট রাখে।