সৌরভ কী বিজেপিতে?জল্পনায় বিজেপি নেতার টুইট

।। রাজীব ঘোষ।।

সৌরভ গাঙ্গুলীর জন্মদিনে তাকে শুভেচ্ছা জানিয়ে টুইট করেছেন রাজ্যের বিজেপির সহকারি পর্যবেক্ষক অরবিন্দ মেনন। আর সেই টুইট কে ঘিরে রাজ্য রাজনীতিতে নতুন করে জল্পনা তৈরি হয়েছে। প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে বিজেপির অন্দরেও। সৌরভের জন্মদিনে শুভেচ্ছা কেন জানালেন অরবিন্দ মেনন? শুধুই কি সৌরভের সঙ্গে বাঙালি সেন্টিমেন্ট জড়িয়ে আছে বলে? নাকি এর পিছনে রাজনীতির কোন খেলা রয়েছে?

সৌরভের সঙ্গে কি বিজেপির শীর্ষ নেতৃত্বের পক্ষ থেকে যোগাযোগ রাখা হচ্ছে? চর্চা শুরু হয়েছে রাজ্যে। বেশ কিছুদিন ধরেই সৌরভ গাঙ্গুলী রাজনীতিতে আসতে পারেন বলে বিভিন্ন মহলে শোনা যাচ্ছিল। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সঙ্গে একান্ত বৈঠক হয়। সেই বৈঠক বিসিসিআই সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব নেওয়ার আগে হয়েছে। ভারতীয় বোর্ডের সভাপতি হন সৌরভ গাঙ্গুলী। সচিব হয়েছেন অমিত শাহের পুত্র জয় শাহ।

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সঙ্গে সৌরভের এই বৈঠককে ঘিরে তখন থেকেই রাজনীতিতে চর্চা শুরু হয়। যদিও সৌরভ গাঙ্গুলী এই বিষয়টিকে সেভাবে গুরুত্ব দেননি। তবে বিজেপি নেতা অরবিন্দ মেননের জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানিয়ে টুইট এর পরে জল্পনা শুরু হয়েছে। তবে কি একুশের বিধানসভা নির্বাচনে রাজ্যে বিজেপির মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী হচ্ছেন সৌরভ গাঙ্গুলি? তাহলে কি সৌরভ বিজেপিতে যোগ দেবেন? যদিও সবটাই প্রশ্ন। এই বিষয়ে সুনির্দিষ্ট কোনো উত্তর পাওয়া যায়নি।

রাজ্যের বিজেপির সহকারি পর্যবেক্ষক অরবিন্দ মেনন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের ঘনিষ্ঠ। কেন্দ্রীয় স্তরে বিজেপির গুরুত্বপূর্ণ নেতা। অরবিন্দ মেনন কলকাতায় প্রায় দুই বছরের উপর রয়েছেন। সৌরভের সঙ্গে কোনদিন দেখা হয়নি। 2021 সালে রাজ্যে বিধানসভা নির্বাচনে তার বড় দায়িত্ব রয়েছে। সেই অরবিন্দ মেনন সৌরভকে শুভেচ্ছা জানানোয় চর্চা শুরু হয়েছে। তার এই শুভেচ্ছা কিসের ইঙ্গিত? বিজেপির অন্দরে ও বিভিন্ন ধরনের আলোচনা শুরু হয়েছে।

প্রসঙ্গত, সৌরভ গাঙ্গুলীর জন্মদিনে তার স্ত্রী ডোনা গাঙ্গুলী জানিয়েছেন সৌরভ গাঙ্গুলী রাজনীতি করলেও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকায় থাকবেন। সেই সময় তার এই মন্তব্য কে নিয়ে জল্পনা শুরু হয়। সৌরভ গাঙ্গুলি রাজনীতিতে যোগ দেবেন কি না সেই বিষয় পরিষ্কার নয়। তবে সৌরভের জন্মদিনে বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতার টুইট যথেষ্ট তাৎপর্যপূর্ণ বলে মনে করছে রাজনৈতিক মহল।