পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হলে স্কুল কলেজ খুলবে না:পার্থ চট্টোপাধ্যায়

1 min read


।। রাজীব ঘোষ ।।

পশ্চিমবঙ্গের ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত স্কুল-কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ের সহ সমস্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে বলে রাজ্য সরকার জানিয়ে দিয়েছিল। এরপরে কেন্দ্রের নির্দেশ আসে ২১ সেপ্টেম্বর থেকে নবম থেকে দ্বাদশ এর ক্লাস অভিভাবকেরা রাজি থাকলে চালু করতে হবে। এই সিদ্ধান্তের ফলে দুশ্চিন্তা এবং অনিশ্চয়তায় ভুগছিলেন পড়ুয়া এবং অভিভাবকেরা।

তাদের প্রশ্ন করোনার প্রকোপ এর মধ্যে ছেলেমেয়েদের কিভাবে স্কুলে পাঠানো যাবে। রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় জানিয়ে দিয়েছেন পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হলে এই রাজ্যে স্কুল কলেজ খোলা হবে না। কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ের ছেলেমেয়েরা সিনিয়র। কিন্তু যখন করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে সেই সময় স্কুল কিভাবে খুলবে বোঝা যাচ্ছে না।

আরো পড়ুন : আইন ভাঙার জন্য আসি নি,বললেন মুকুল রায়

কেন্দ্রীয় নির্দেশ নিয়ে এর আগেই পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেন কোনো অভিভাবক হয়তো অনুমতি দিলেন আবার কেউ দিলেন না। সেক্ষেত্রে স্কুল কিভাবে চলবে। তবে পড়ুয়াদের কাছে কিভাবে পৌঁছানো যায় কিভাবে পড়াশোনা চালু রাখা যায় সেটা দেখা দরকার। শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় জানান কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ে যথেষ্ট আসন আছে।

পড়ুয়ারা প্রেসিডেন্সি সেন্ট জেভিয়ার্স বেথুন আশুতোষ এর মত কলেজে ভর্তি হতে চান। প্রত্যেকটি কলেজে ভর্তির আবেদনের জন্য ফি দিতে হয়। কেন্দ্রীয়ভাবে ভর্তির ব্যবস্থা হলে সেটা দিতে হয়না। সেই ব্যবস্থা কেন হচ্ছে না। তবে ২১ সেপ্টেম্বর থেকে পড়ুয়ারা স্কুলে যেতে পারবে বলে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক নির্দেশ দিলেও রাজ্য সরকার সেই রাস্তায় যেতে রাজি নয়।