কোভিড হাসপাতালে তৃণমূল নেতার দাদাগিরি!

1 min read

।। কৌশিক ঘোষ মুর্শিদাবাদ ।।

কোভিড হাসপাতালে তৃণমূল নেতার দাদাগিরি। ডাক্তারকে মারধরের অভিযোগ। ঘটনাটি মুর্শিদাবাদের বহরমপুর মাতৃসদন কোভিড হাসপাতালে। ঘটনায় কাজ বন্ধের সিদ্ধান্ত চিকিৎসক নার্সদের। জানা যায় খরগ্রাম ব্লক তৃণমূল সভাপতি তথা জেলা পরিষদে বনভূমি কর্মাধ্যক্ষ মফিজ মণ্ডল।

কয়েক দিন থেকে অসুস্থ থাকায় বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে গেলে তাকে মুর্শিদাবাদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার কথা বলা হয়। মুর্শিদাবাদ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে থেকে কোভিড হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেয়া হয়। বহরমপুর মাতৃসদন কোভিড হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসা না করার অভিযোগ তোলে মফিজ মণ্ডল এর আত্মীয়রা।

হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের অভিযোগ অক্সিজেন দিতে দেরি হওয়ায় ডাক্তারকে মারধর করে নিজেই আই‌ সি ইউ রুমে ঢুকে বেডে বসে পরেও অন্যান স্টাফ দের হেনস্থা করে বলে অভিযোগ। এর ফলে চিকিৎসরা কর্ম বিরতি ডাক দেয়। ঘটনায় কয়েকজনকে আটক করে বহরমপুর থানার পুলিশ।

গোটা ঘটনা প্রসঙ্গে এম এস ভি পি শর্মিলা মল্লিক জানিয়েছেন , চিকিৎসা করার প্রক্রিয়া শুরু করার আগেই রোগীর পরিবারের লোকজন উত্তেজিত হয়ে পড়ে ডাক্তার ও অন্যান্য স্টাফদের হেনস্থা করে ও নিজেই হাঁটতে হাঁটতে গিয়ে আইসিইউ ঘরে ঢুকে বেডে শুয়ে পড়েন। যেখানে কোভিড পজেটিভ রোগীকে রাখা হয়।

অন্যদিকে রোগীর পরিবারের একজন জানান চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসা হয় কিন্তু চিকিৎসা করতে অবহেলা করছিল চিকিৎসকেরা। এনে দুই-একটা কথা হয়েছে কিন্তু কাউকে হেনস্থা বা মারধর এরকম কিছু হয়নি।