বাল্য-বন্ধুর চোখে প্রণব মুখোপাধ্যায় || অজানা কথা ||

।। হিমাদ্রি মণ্ডল, বীরভূম ।। 

সোমবার বিকালবেলা হঠাৎই খবর এল, প্রয়াত দেশের প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়। সেই খবর অচিরেই পৌঁছে যায় তাঁর ছোটবেলার বন্ধু সিউড়ির বাসিন্দা ষষ্ঠী কিঙ্কর দাসের কাছে। বন্ধুকে হারিয়ে চোখের জল ধরে রাখতে পারেননি তিনি।

প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়ের ছবি আঁকড়ে বন্ধু জানালেন, ছোটবেলায় সিউড়ি বিদ্যাসাগর কলেজে একই সাথে পড়াশোনা করেছেন এবং একই হোস্টেলে থেকেছেন একসঙ্গে।

ষষ্ঠী কিংকর বাবু জানাচ্ছেন, ১৯৫২ সালে প্রথম পরিচয় হয়েছিল প্রণব মুখোপাধ্যায়ের সাথে। সিউড়ি বিদ্যাসাগর কলেজে পড়াশোনা করার সুবাদে পরিচয় হয় তাদের। চার বছর পড়াশোনা করেছিলেন কলেজে,  পরবর্তী ক্ষেত্রে ইউনিভার্সিটিতে দু’বছর। কলেজ লাইফের নানান কথা তুলে ধরলেন তিনি। একসাথে খেলাধুলা করা, ক্যান্টিনে আড্ডা দেওয়া। তিনি জানান প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায় ভুতের ভয় পেতেন,  একা একা রাতে বের হতেন না কোথাও। বিভিন্ন অজানা কথা জানালেন প্রণব মুখোপাধ্যায়ের বন্ধু ষষ্ঠী কিংকর দাস।

কলেজে পড়া থেকে শুরু করে শেষ জীবন পর্যন্ত বন্ধুদের খুব ভালোবাসতেন প্রণববাবু। বন্ধুর মতে, তিনি ভারতবর্ষের রাজনীতির আকাশে ধ্রুবতারা ছিলেন প্রণব। তাঁ প্রয়াণে একটি অধ্যায় শেষ হলো।