স্মৃতিশক্তি বাড়ানোর সহজ উপায়

1 min read

।। প্রথম কলকাতা ।।

সকলে একভাবে সব কিছু মনে রাখতে পারেন না। কোন কিছু মনে করতে না পারা অনেক সময় হতাশাজনক হয়ে ওঠে।কারণ মস্তিষ্কের গঠন একরকম নয়। তবে খাওয়া-দাওয়াও জীবনযাত্রায় পরিবর্তন করে স্মৃতিশক্তিকে বাড়াতে পারা যায়।

মাইন্ড গেম : বিভিন্ন ক্রসওয়াড, ধাঁধা,অন্যান্য মেমোরি গেম হচ্ছে মস্তিষ্কের উন্নতি ঘটায়। স্মৃতিশক্তিকে শক্তিশালীও করে তোলে।

বাদাম এবং বিজ জানা: বাদাম এবং বিজ দানা জাতীয় খাবারে রয়েছে ভিটামিন ই ,একটি অ্যান্টি অক্সিডেন্ট এর উৎস। বাদাম এবং বীজ থানার এই উপাদানসমূহ স্মৃতিশক্তি বাড়াতে সাহায্য করে।

ডার্ক চকলেট : ডার্ক চকলেট শুধু রসনা তৃপ্তিই নয় স্মৃতিশক্তি বাড়াতে সাহায্য করে। তবে নিশ্চিত হতে হবে 70% কোকো আছে কিনা।

গ্রিন টি : গ্রিন টি বরাবরই একটি উদ্দীপক পানীয় হিসেবে পান করে থাকি আমরা। এটি আমাদের মেধা বিকাশে অনেক বেশি সহায়তা করে।

শারীরিক স্বাস্থ্যের সঙ্গে মানসিক স্বাস্থ্য বজায় রাখা খুবই জরুরি।

শর্করা জাতীয় খাবারের পরিমাণ কমানো : শর্করা জাতীয় খাবারের পরিমাণ কমানো খুবই প্রয়োজনীয়। অতিরিক্ত চিনি শরীরে সমস্যার কারণ হতে পারে। অতিরিক্ত চিনি দুর্বল স্মৃতিশক্তি এবং কম দিকে ঠেলে দিতে পারে।এছাড়াও কার্ব জাতীয় খাবার ও মস্তিষ্কের কার্যকারিতা কমার সঙ্গে সম্পর্কিত।

ব্যায়াম : নিয়মিত হাঁটা, দৌড়ানো, সাঁতার, এ্যারোবিক্স, যোগাসন ইত্যাদি শারীরিক এবং মানসিক ফিটনেস বাড়াতে সাহায্য করে।

সঠিক পরিমাণ ঘুম : ঘুমের গুরুত্ব সম্পর্কে নতুন করে কিছু বলার নেই। দৈনিক পাঁচ ঘণ্টার কম ঘুম হলে মস্তিষ্ক ক্লান্ত হয়ে পড়ে।আবার 10 ঘণ্টার বেশি ঘুমালে মস্তিষ্ক সজাগ হওয়ার সময় পায়না।