রাজস্থানে সংকট,হাইকোর্টে মায়াবতী

।।রাজীব ঘোষ ।।

দলের ছয় জন বিধায়কের পুনরুদ্ধারের জন্য রাজস্থান হাইকোর্টের দ্বারস্থ হবে বিএসপি। বিধায়করা গত বছর কংগ্রেসের সঙ্গে মিশে গিয়েছিলেন। একথা জানিয়েছেন বিএসপি সুপ্রিমো মায়াবতী। গত বছর সেপ্টেম্বরে রাজস্থান বিধানসভার স্পিকারের কাছে আর্জি জানিয়েছিলেন কংগ্রেসের সঙ্গে হাত মিলিয়েছেন বলে যেন বিবেচনা করা হয়।

এই প্রস্তাব দ্রুততার সঙ্গে মেনে নেন স্পিকার সি পি যোশী। রীতিমতো ক্ষুব্ধ হয়েছিলেন মায়াবতী। যদিও কংগ্রেস সরকারকে সমর্থন করেছিল তার দল। এর মধ্যেই কংগ্রেসের সঙ্গে বিএসপি বিধায়কদের মিশে যাওয়ার বিরুদ্ধে হাই কোর্টে যান বিজেপি বিধায়ক মদন দিলওয়ার। আর্জিতে জানান কংগ্রেসের অভিযোগ পাওয়ার কয়েক ঘণ্টার মধ্যে পাইলট এবং বিদ্রোহীদের স্পিকার নোটিশ পাঠিয়েছিলেন অথচ গত বছর বিধায়কদের অভিযোগ নিয়ে পদক্ষেপ করেননি তিনি।

মায়াবতী প্রথমদিকে রাজস্থান সংকটে কিছু বলেননি। পরে তিনি অভিযোগ করেন তার দলের বিধায়কদের গহলৌত চুরি করে নিয়েছেন। বিরোধীদের কল ট‍্যাপের অভিযোগ তুলে রাজস্থানে রাষ্ট্রপতি শাসনের আর্জি জানান। বিএসপি তরফে জানানো হয় দলের প্রতীকে জেতা ছয় বিধায়ককে অনাস্থা ভোটে কংগ্রেসের বিরুদ্ধে ভোট দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

সেই নির্দেশ মতো ভোট না দিলে সদস্যপদ খারিজ এর হুঁশিয়ারি দেওয়া হয়েছে। কংগ্রেস ও বিজেপির মধ্যে কোনো সংযোজন হয়নি। বিএসপি তরফে জানানো হয় স্পিকারের নির্দেশের বিরুদ্ধে হাইকোর্টে যাচ্ছে। তবে মায়াবতীর পদক্ষেপে অশোক গহলৌত আরো চাপে পড়ে গেলেন। অশোক গহলৌত বনাম শচীন পাইলট দ্বন্দ্বে নতুন পক্ষ হিসেবে অবতীর্ণ হলেন বিএসপি সুপ্রিমো মায়াবতী।