বিজেপির বনধ ঘিরে উত্তপ্ত বাগনান

1 min read

।। প্রথম কলকাতা ।।

দলীয় কর্মীর মৃত্যুর প্রতিবাদে বৃহস্পতিবার ১২ ঘন্টার বাগনান বনধের ডাক দিয়েছে হাওড়া জেলা বিজেপি নেতৃত্ব। উল্লেখ্য পুজোর সময় বিজেপি কর্মী কিঙ্কর মাজি দুষ্কৃতীদের হাতে আক্রান্ত হন। এরপর তাঁকে কলকাতার এনআরএস হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। বুধবার তাঁর মৃত্যু হয়। এরপরেই দলীয় কর্মীর মৃত্যুর প্রতিবাদে সোচ্চার হয়ে ওঠেন বিজেপির কর্মী-সমর্থকেরা।

তাঁদের অভিযোগ তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীদের হাতে নিহত হয়েছেন কিঙ্কর মাজি। এরপরই আজ ১২ ঘন্টার বাগনান বনধের ডাক দিয়েছে বিজেপি।বিজেপির এই কর্মসূচিকে ঘিরে এদিন সকাল থেকেই উত্তপ্ত হয়ে ওঠে বাগনান সহ বিস্তীর্ণ এলাকা। রথতলায় বিজেপি একটি মিছিল বের করলে পুলিশ তাতে বাধা দেয়। বেশ কয়েকজন বিজেপি কর্মী সমর্থকদের আটক করেছে পুলিশ।

মিছিল কর্মসূচিতে পুলিশ বাধা দিলে পুলিশ কর্মীদের সঙ্গে বচসা শুরু হয়ে যায় বিজেপি কর্মীদের। এলাকা উত্তপ্ত হয়ে ওঠে। বিজেপি কর্মীদের অভিযোগ পুলিশ তাঁদের ওপর ব্যাপক লাঠিচার্জ করেছে।তাতে কয়েকজন বিজেপি কর্মী আহত হয়েছেন বলে জেলা নেতৃত্বের দাবি। এদিকে বিজেপির কর্মসূচির বিরুদ্ধে পাল্টা বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করে তৃণমূল।

আরো পড়ুন : বিজেপি-নীতিশ জোটে কি ফাটলের রেখা স্পষ্ট হচ্ছে ?

তৃণমূলের দাবি বিজেপি উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে এলাকায় উত্তেজনা সৃষ্টি করছে। তৃণমূল পাল্টা থানার সামনে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করে। তৃণমূলের দাবি এই খুনের ঘটনায় তাদের কোনো কর্মী সমর্থক যুক্ত নয়। এদিন বাগনান স্টেশনের সামনেও তৃণমূল এই ইস্যুতে বিজেপির বিরুদ্ধে বিক্ষোভ দেখায়। এদিকে বাগনানে প্রায় সব দোকানপাট বন্ধ রয়েছে । তবে বেশ কিছু টোটো,অটো চলতে দেখা গিয়েছে।

আর অশান্তির ভয়ে এলাকাবাসী সেভাবে রাস্তায় বের হননি। বাগনানের বিস্তীর্ণ এলাকা জুড়ে বিশাল পুলিশবাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে বিজেপির হাওড়া জেলা সভাপতি শিব শংকর বেইচ তৃণমূলের তীব্র নিন্দা করেছেন। তাঁর কথায় বিজেপি শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি পালন করছিল। পুলিশ শাসক দলের মদতে লাঠিচার্জ করে পরিস্থিতি উত্তপ্ত করে তুলেছে।

Categories