Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

Malda: ধারালো অস্ত্র নিয়ে বাড়িতে চড়াও দুষ্কৃতিরা, অতর্কিতে হামলা বিজেপি নেত্রীর ওপর

1 min read

।। প্রথম কলকাতা।।

বিধানসভা ভোটে দাঁড়ানোর মাসুল গুনতে হল মালদার (Malda) এক বিজেপি নেত্রীকে । বাড়িতে ঢুকে দুষ্কৃতিদের হামলায় গুরুতর আহত হলেন তিনি । ঘটনাটি মালদার চাঁচল থানার অন্তর্গত মালতিপুরের । এই ঘটনার নেপথ্যে রয়েছে তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা, এমনটাই অভিযোগ এই বিজেপি নেত্রীর পরিবারের। যদিও তৃণমূলের বিরুদ্ধে ওঠা এই অভিযোগ একেবারেই অস্বীকার করা হয়েছে স্থানীয় তৃণমূল নেতৃত্বের তরফ থেকে। পাল্টা তৃণমূল এই ঘটনার তদন্তে পুলিশের উপরেই আস্থা রেখেছে।

ঘটনাটি ঘটে বৃহস্পতিবার রাতে। চাঁচল থানার অন্তর্গত আলাদীপুরের বিজেপি সাংগঠনিক মহিলা মোর্চার সহ সভা নেত্রী হলেন মৌসুমী দাস। গতকাল রাতে তাঁর বাড়িতে প্রবেশ করে একদল দুষ্কৃতী। মুখে কালো কাপড় বেঁধে থাকা ওই দুষ্কৃতীরা তাঁর উপরে ধারালো অস্ত্র নিয়ে চড়া হয়। এলোপাথাড়ি ভাবে কোপানো হয় তাকে। যার ফলে তাঁর গলায় এবং বুকে গুরুতর ক্ষত সৃষ্টি হয় এমনটাই দাবি মৌসুমী দাসের স্বামী পিন্টু মণ্ডলের।

এই ঘটনার পর তড়িঘড়ি বিজেপি নেত্রীকে উদ্ধার করে নিয়ে আসা হয় চাঁচলের স্পেশালিটি হাসপাতালে। বর্তমানে সেখানেই তিনি চিকিৎসাধীন রয়েছেন। বিজেপি নেত্রীর স্বামী পুলিশকে জানান, ধারালো ছুঁড়ি দিয়ে আঘাত করা হয় বিজেপি নেত্রীকে। এরপর তাঁর চিৎকার শুনে বাড়ির অন্যান্য সদস্য এবং পাড়া-প্রতিবেশীরা ছুটে আসলে দুষ্কৃতীরা সেখান থেকে পালিয়ে যায়। পিন্টুবাবুর অভিযোগ যেহেতু মৌসুমী দাস মালতিপুর বিধানসভার ভোটে প্রার্থী হিসেবে দাঁড়িয়েছিলেন তাই তৃণমূলের তরফ থেকে দুষ্কৃতীদের দিয়ে এই ধরনের কাজ করানো হয়েছে। তবে এই অভিযোগ একেবারেই উড়িয়ে দিয়েছেন তৃণমূল কংগ্রেসের মালদা জেলার মুখপাত্র শুভময় বসু। তিনি সাফ জানিয়ে দেন, এই ধরনের ঘটনার সঙ্গে তৃণমূলের কোনো রকম যোগসূত্র নেই। পুলিশের কাছে অভিযোগ জানানো হলে ঘটনার সঠিক তদন্ত অবশ্যই হবে বলে আশাবাদী তিনি।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories