Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

Tala Bridge: কবে দেওয়া হবে পুনর্বাসন? বিক্ষোভ টালা ব্রিজের নীচের পরিবারগুলির

1 min read

।।প্রথম কলকাতা।।

টালা ব্রিজ (Tala Bridge) চালুর আগেই শুরু হল বিক্ষোভ। নিচ থেকে ৩০-৪০টি পরিবারকে উচ্ছেদ করা হয়েছিল এই ব্রিজ সারানোর সময়ে। তারপর কেটে গেছে তিন বছর। পরিবারগুলির অভিযোগ, খুব খারাপ পরিস্থিতির মধ্যে থাকতে হচ্ছে তাদের। তাঁদের স্থায়ী ঠাঁই মেলেনি। বারবার অভিযোগ করেও কোনও সুরাহা হয়নি। তাই বৃহস্পতিবার মুখ্যমন্ত্রীর কাছে নিজের আবেদন পৌঁছে দেওয়ার জন্যই এদিন মানববন্ধন করলেন তাঁরা।

যদিও এই বিক্ষোভের পিছনে রাজনৈতিক ইন্ধন রয়েছে বলে দাবি স্থানীয় কাউন্সিলর তরুণ সাহার।তরুণ সাহার কথায়, ‘খাল পাড়ে ৩০-৪০ জনের থাকার ব্যবস্থা করা হয়েছে। ঘরের শুধু মেঝে সিমেন্ট করা হবে। আর মাথায় ত্রিপল সরিয়ে ছাদ দেওয়া হবে। এরপর চিৎপুর ব্রিজও তো ভাঙা হবে। সেখানে ৭০-৮০ জনকে সরাতে হবে। আমরা রেলকে বলেছি জমি দিতে। তাঁরা জমি দিলে সকলের ঘর একসঙ্গে করা যাবে।’

এই মুহুর্তে খাল পাড়ে ত্রিপলে ঢাকা ঘরে থাকছেন পরিবারগুলি। বাসিন্দাদের অভিযোগ, প্রায় ১৫০ মানুষ খাল পাড়ে থাকছেন। ত্রিপলে ঢাকা ঘর। অসহ্য গরম লাগে। বর্ষায় জল ঢোকে ঘরে। মাত্র দু’টি শৌচাগার। ফলে সমস্যার অন্ত নেই।

উচ্ছেদ হওয়া পরিবারগুলি আরও বলছে যে, ‘স্থানীয় কাউন্সিলর আমাদের পুরনো বাসস্থান থেকে উচ্ছেদ করেছিলেন। এখন উনি আমাদের বাসস্থানের ব্যবস্থা করছেন না।  মেয়র ফিরহাদ হাকিমের কাছে অভিযোগ জানিয়েও কোনও লাভ হয়নি।’তাই তাদের আবেদন মুখ্যমন্ত্রীর কাছে পৌঁছে দেওয়ার জন্য এদিন মানববন্ধন করেন। তাদের বক্তব্য, সেতুর কাজে কোনও বাধা দিতে চাননি তারা। কিন্তু তাদের পুনর্বাসন চাই।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories