Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

সামনেই পুজো, ওজন কমাতে চান? খাবার খান ঘড়ি ধরে

।। প্রথম কলকাতা ।।

সামনেই পুজো, মাঝে আর মাত্র দুই সপ্তাহ বাকি। ইচ্ছা করলেই এই দুই সপ্তাহে আপনি শরীরের অতিরিক্ত মেদ কিছুটা হলেও কমাতে পারবেন। এর জন্য আপনাকে জিমে গিয়ে অনেকটা সময় ব্যয় করার দরকার নেই। শুধুমাত্র নজর দিতে হবে আপনার খাওয়ার অভ্যাসের উপর। অনেকে মনে করেন, কম পরিমাণে খাবার খেলেই হয়ত ওজন নিয়ন্ত্রণে থাকে। কিন্তু এই ধারণা সম্পূর্ণ সঠিক নয়। কম পরিমাণে পুষ্টিকর খাবার খেতে হবে ঘড়ি ধরে। আর এই অভ্যাসের মধ্যেই লুকিয়ে রয়েছে ওজন কমার মন্ত্র।

পুজোর আগে নিয়ম মেনে ডায়েট করলেও, যদি ডায়েট চার্টের সময় ঠিক না রাখতে পারেন তাহলে সেভাবে ফল পাবেন না। কারণ প্রত্যেক মানুষের শরীরে প্রতিটি কোষই ২৪ ঘন্টার একটি চক্র অনুসরণ করে। এর উপর নির্ভর করে দৈনন্দিন শারীরবৃত্তীয় প্রক্রিয়াগুলি।

গবেষণায় দেখা গিয়েছে, প্রায় দেড় মাস ধরে চলা ডায়েটের ক্ষেত্রে খাবারের পরিমাণ খুব একটা গুরুত্বপূর্ণ নয়। ডায়েট মেনে কতটা খাবার খাচ্ছেন তা ওজনের উপর বিশেষ প্রভাব ফেলে না। উপরন্তু এক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ হল, খাবার খাওয়ার সময় এবং এর ক্ষেত্রে বিপাক হারের উপর তার প্রভাব। অর্থাৎ ডায়েট মানতে হবে, পরিমিত খেতে হবে অথচ ঘড়ি ধরে, তবেই ওজন নিয়ন্ত্রণে থাকবে।

২০১৩ সালের দুটি গবেষণায় দেখা গিয়েছিল কোন ব্যক্তি যদি দিনের শুরুতে একটু বেশি পরিমাণে ক্যালরিযুক্ত খাবার খান এবং সন্ধ্যায় কম ক্যালরিযুক্ত খাবার খান তাহলে এই অভ্যাস ওজন হ্রাসে বেশ কার্যকরী। কিন্তু পরবর্তীকালে নতুন আরেকটি গবেষণায় দেখা যায়, যদি সকাল আর রাতের খাবারের পরিমাণে ভারসাম্য না থাকে তাহলে ডায়েট কোন কাজে আসবে না।

এই গবেষণায় অংশগ্রহণকারী ব্যক্তিদের দুই ধরনের খাবার খাওয়ানো হয়। একদলকে দেওয়া হয়েছিল বেশি পরিমাণে সকালের খাবার এবং অল্প পরিমানে রাতের খাবার। অপরদিকে আরেকটি দলকে দেওয়া হয়েছিল রাতে বেশি পরিমাণ খাবার এবং সকালে হালকা পরিমাণ খাবার। কিন্তু সমীক্ষায় দেখা যায়, এক্ষেত্রে ওজনে তেমন কোন প্রভাব পড়েনি। আসলে শুধু ডায়েট করলে হবে না ঘড়ি মেপে সময় অনুযায়ী খাবার খেলে তবেই ওজন নিয়ন্ত্রণে থাকবে। কোন ব্যক্তির বিপাক হার কেমন হবে তা নির্ভর করে তিনি সারাদিন ঠিক কতটা পরিমাণে খাবার খাচ্ছেন এবং কত সময়ের ব্যবধানে খাচ্ছেন তার উপর।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories