Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

মিঠাই: ‘জবা মায়ের ২য় ভাই’, প্লাস দিয়ে ওমির লাগানো বোমা কাটতেই ট্রোলের মুখে সিদ্ধার্থ

1 min read

।।  প্রথম কলকাতা ।।

গল্পে গরু গাছে ওঠে, অতিরঞ্জিত বিষয়বস্তু দিয়ে সাজানো হয় ধারাবাহিক। এতেই অভ্যস্ত হয়ে উঠেছেন দর্শকরা। যার প্রতিছবি দেখা যায় টিআরপিতে। কিন্তু বর্তমানে মানুষ সচেতন। হাতের মুঠোয় রয়েছে প্রতিবাদের হাতিয়ার। তাই ধারাবাহিকে বেফাঁস কিছু দেখলেই তাই নিয়ে শুরু করেন সোশ্যাল মিডিয়ায় ট্রোলিং। এবার ট্রোলিংয়ের খপ্পরে পড়লো বাংলা টেলিভিশনের এক নম্বর শো ‘মিঠাই’। বর্তমানে এই নাম্বার ওয়ান ধারাবাহিকের সেরার সিংহাসন ধরে রাখতে কোনও রিস্ক নিতে চায় না চ্যানেল কর্তৃপক্ষ। তাই ব্যাক টু ব্যাক সিরিয়ালের নতুন প্রোমো নিয়ে হাজির হচ্ছে মনোহরা পরিবার।

শুক্রবার রাতেই ‘মিঠাই’-এর নতুন প্রোমো প্রকাশ্যে এসেছে, যা দেখে চোখ ছানাবড়া ফ্যানেদের। প্রোমোতে দেখা যাচ্ছে সিদ্ধার্থকে কড়া জবাব দিতে মনোহরায় আস্ত টাইম বোমা লাগিয়েছে ওমি। সকলকে প্রাণে মেরে ফেলবার ছক তার। আর মোদক পরিবারের প্রাণ বাঁচাতে বম্ব ডিফিউজাল স্কোয়াডের অপেক্ষা করতে পারবে না উচ্ছেবাবু। হাতে প্লাস নিয়েই কাটতে যাচ্ছে বোমার তাঁর। কিন্তু কোন তারটা কাটবে সিড বুঝতে না পেরে মিঠাইয়ের কাছে তাঁর করুণ প্রশ্ন, ‘কোন তারটা কাটব বলতো মিঠাই? লাল না হলুদ টা? ভুল তারটা কাটলে কিন্তু সবাই শেষ হয়ে যাব।’

আরো পড়ুন : ‘বন্দেমাতরম’ গেয়ে বন্দি হয়েছিলেন ব্রিটিশের হাতে, মৃণাল পরিচালনায় প্রাণ পেয়েছিল নাগরিক যন্ত্রণা

ধারাবাহিকের এই দৃশ্যই এদিন নেটনাগরিকদের মনে করালো ‘কে আপন কে পর’ ধারাবাহিকের জবা মায়ের কান্ড। কাচি দিয়ে বোমা নিষ্ক্রিয় করবার মতো কাণ্ড সেরেছে জবা, এবার সেই পথেই হাঁটল উচ্ছেবাবু। তবে না, কাঁচি নয়, অন্তত সিদ্ধার্থের হাতে দেখা গেল প্লাস। ধরাবাহিকের এই দৃশ্য নিয়েই এদিন ট্রোলিংয়ে মাতলেন নেটনাগরিকরা। হেঁসে লুটোপুটি খাচ্ছেন তাঁরা। একই সাথে এক নেটনাগরিকের প্রশ্ন, ‘সিদ্ধার্থের অনুপ্রেরণা তবে কি জবা?’ কেউ লেখেন, ‘দু’জনেই বড্ড বোকা’। আবার অন্য একজনের বক্তব্য, ‘বাড়ির ড্রয়িং রুম সবাই জড়ো হয়ে দাঁড়িয়ে বোমা নিষ্ক্রিয় করা দেখছে! সকলে উচ্চশিক্ষা প্রাপ্ত, তারা তো বোঝে টাইম বোমা জিনিসটা কী?’

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories