Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

বাংলাদেশ: খুলনা-মোংলা রেলপথ হচ্ছে ডিসেম্বরে! মজবুত হবে অর্থনীতি

1 min read

।। প্রথম কলকাতা ।।

২০২২ সালের ২৬ শে ফেব্রুয়ারি খুলনা-মোংলা রেললাইন প্রকল্প পরিদর্শনে এসেছিলেন বাংলাদেশের রেলওয়ে বিভাগের মহাপরিচালক ধীরেন্দ্রনাথ মজুমদার তিনি জানিয়েছিলেন চলতি বছরের ডিসেম্বরের দিকে এই রেল লাইন নির্মাণ প্রকল্পের কাজ শেষ হবে। সেই অনুযায়ী দ্রুত কাজ চালানো হচ্ছিল। চলতি বছরের ডিসেম্বরেই এই ট্র্যাকে রেলের চাকা গড়াতে চলেছে। করোনার কারণে এই প্রকল্প কিছুটা হলেও গতিহীন হয়ে পড়েছিল। পরে আবার জোর কদমে কাজ চালানো হয়। বাংলাদেশ সরকার খুলনা-মোংলা রেললাইন প্রকল্পকে অত্যন্ত গুরুত্ব দিয়েছিল যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নতির কারণে।

আরো পড়ুন : কলকাতায় এসে মহাফাঁপরে বাংলাদেশি পর্যটকেরা, লোকসানের মুখে একাধিক সংস্থা, কিন্তু কেন?

পাশাপাশি এই প্রকল্পের মাধ্যমেই বৃদ্ধি করা যাবে মোংলা বন্দর দিয়ে আমদানি এবং রপ্তানির পরিমাণ। এই প্রকল্প মোংলা বন্দরের গতিকে আরো সঞ্চারিত করবে। পাশাপাশি এই বন্দরের সঙ্গে যুক্ত হবে ভারতের রেল শিলিগুড়ি রেল যোগাযোগ। এই রেল পথ দিয়েই নেপাল, ভারত এবং ভুটানে খুব কম খরচে জিনিস বহন করা যাবে।১ আগস্ট সোমবার এই রেলপথ নির্মাণ কাজ পরিদর্শনে এসেছিলেন বাংলাদেশের রেলপথ মন্ত্রী মোহম্মদ নুরুল ইসলাম সুজন। তিনি সাংবাদিকদের সামনেই ঘোষণা করেন, ডিসেম্বরেই এই রেলপথের কাজ শেষ হয়ে যাবে। এর সাথে গুরুত্বপূর্ণভাবে জড়িয়ে রয়েছে রূপসা রেল সেতু।

কারণ এটির উপর দিয়ে উপর রেল ট্র্যাক বসবে। কাজ প্রায় শেষ। বিক্ষিপ্তভাবে সামান্য কিছু কাজ বাকি রয়েছে। কিছু জায়গায় সিগন্যালিংয়ের কাজ চলছে।এই রেলপথ বাংলাদেশের অর্থনীতিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে চলেছে। এই রেল প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করতে পাশে ছিল ভারতীয় প্রতিষ্ঠান লার্সেন অ্যান্ড টার্বো। এই রেলপথ চালু হলে আগামী বছরের জুন মাসের মধ্যেই কুষ্টিয়া থেকে খুলনার যোগাযোগ আরো সহজ হয়ে উঠবে। আগামী ডিসেম্বরে রেল পথ চালু হলেও এখনো দিনক্ষণ সঠিকভাবে ঠিক হয়নি। প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে আলোচনার পরেই দিন নির্ধারিত হবে। এই প্রকল্পটি অনুমোদন পেয়েছিল ২০১০ সালের ২১শে ডিসেম্বর জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির সভায়। এই প্রকল্পটির ব্যায় পরিমাণ প্রায় ৪ হাজার ২৬০ কোটি ৮৮ লক্ষ টাকা।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories