Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

Viral Video: খেলা করছে শিশুরা, হঠাৎ আতশবাজির আগুনে জ্বলে উঠলো চারিদিক ! তারপর ….

1 min read

।। প্রথম কলকাতা ।।

এই প্রতিবেদনের সঙ্গে দেওয়া লিঙ্কে এমন একটি ভিডিও দেখবেন যা দেখে আতশবাজি সম্পর্কে আপনার মনে একটু ভীতি তৈরি হতে পারে। সামান্য ঘটনা যে কত বড় মারাত্মক বিপদ ঘটে ঘটাতে পারে , এই ভিডিওটি তার জলজ্যান্ত প্রমাণ। এমনি থেকেই আতশবাজি সম্পর্কে মানুষের উৎসাহ কম নেই। আতশবাজি আমাদের মনকে যেমন ভালো করে তেমনি চোখে আরাম দেয়। আতশবাজির রোশনাই দেখতে ভালোবাসে না এমন মানুষ হাতে গোনা মাত্র । কিন্তু সেই আতশবাজি যদি চরম বিপদ ডেকে আনে সেক্ষেত্রে বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে ভেবে দেখতে হবে। আসলে এক্ষেত্রে সচেতনতার অভাব আসল কারণ।

কিছুদিন আগেই আমেরিকার নিউ জার্সিতে রাস্তার উপর দাঁড়িয়ে থাকা একটি ট্রাকে প্রায় ৪৫০০ কেজি আতশবাজিতে আগুন লেগে যায়। যার কারণে এক ভয়াবহ পরিস্থিতি তৈরি হয়েছিল। যদিও কোন হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি। তবে রাস্তায় যানজট তৈরি হয়, পরিস্থিতি সামাল দিতে দৌড়ে আসতে হয় পুলিশকে। এবার ঘটলো একেবারে অন্য এক ঘটনা। সামান্য একটি আতশবাজির আগুন বিশাল বিস্ফোরণে পরিণত হলো। ইতিমধ্যে ভিডিওটি দেখেছেন প্রায় ২৫ মিলিয়নেরও বেশি মানুষ।

Simplisafe সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় এই ভিডিওটি আপলোড করতেই অনেকেই অবাক হয়ে গিয়েছেন। ভিডিওটিতে দেখা যায়, কয়েকজন ব্যক্তি রীতিমত উৎসবের আমেজে ছিলেন । অবসর সময় কাটাচ্ছিলেন বেশ আনন্দ করে। সেখানে শিশুরাও পর্যন্ত উপস্থিত ছিল। তারপর একটি আতশবাজিতে আগুন ধরাতেই সেই আগুন চারিদিকে ছড়িয়ে পড়ে । আতশবাজি ভর্তি গাড়িতে সেই আগুন দিয়ে পৌঁছায়। দ্রুত সেই স্থান থেকে সবাই পালিয়ে যান, তাই হয়ত কোন কথা হতে ঘটনা ঘটেনি। যেভাবে একজন মা তার শিশুকে নিয়ে দৌড়ে পালাচ্ছেন, তা দেখে নেটিজেনরা অনেকেই ভয় পেয়ে গিয়েছেন।

এই বিষয়ে Simplisafe জানিয়েছে, গ্রাহকদের সুরক্ষার জন্য বিদ্যমান এবং তাদের নিরাপত্তাকে ঝুঁকির মধ্যে ফেলে এমন ঘটনাগুলিকে তারা আলোকিত করেন না। দর্শকদের উদ্দেশ্যে জানিয়েছে, এই ভিডিওতে কাউকে যদি কেউ চিনে থাকে তাহলে যেন তাদেরকে দয়া করে জানানো হয় সবাই নিরাপদ কিনা।ইউএস কনজিউমার প্রোডাক্ট সেফটি কমিশন অনুসারে গত বছর, হাসপাতালের জরুরি কক্ষে আনুমানিক ১১,৫০০টি আতশবাজি-সম্পর্কিত আঘাতের চিকিৎসা করা হয়েছে । যার মধ্যে ৭৪% আঘাতের রিপোর্ট করা হয়েছে ১৮ জুন থেকে ১৮ জুলাইয়ের মধ্যে অর্থাৎ এক মাসের সময়কালে।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories