Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

‘উদ্ধবের ইস্তফায় খুশি নই’, বিবৃতি শিন্ডে শিবিরের মুখপাত্রের

1 min read

।।প্রথম কলকাতা।।

১০দিনের ‘মহা’নাটকের অবসান। বুধবার রাতে ফেসবুক লাইভে এসে পদত্যাগ করলেন উদ্ধব ঠাকরে। স্বাভাবিক ভাবেই খুশি হওয়ার কথা ছিল শিন্ডে শিবিরের। কিন্তু না শিন্ডে শিবিরের মুখপাত্র জানালেন তারা উদ্ধবের পদত্যাগে খুশি নন তারা এটা চান নি।

মুখ্যমন্ত্রী পদ থেকে উদ্ধবের ইস্তফা ঘোষণার পর বিজেপি নেতারা উল্লাসে মেতে উঠেছিলেন। চলছিল মিষ্টি বিতরণ কিন্তু ঠিক এর বিপরীত ছবি ছিল বিদ্রোহী শিবসেনা নেতা একনাথ শিন্ডের শিবিরে। ‘উদ্ধবের ইস্তফায় খুশি নই আমরা’, খবর শুনে বললেন শিন্ডে শিবিরের মুখপাত্র দীপক কেসরকর।

আসামের গুয়াহাটি থেকে বুধবার বিকেলে গোয়ায় পৌঁছন শিন্ডের অনুগামী বিধায়কেরা।  রাতে শিন্ডে শিবিরের মুখপাত্র দীপক বলেন, ‘উদ্ধব ঠাকরের পদত্যাগ আমাদের কাছে আনন্দের বিষয় নয়।’তিনি জানান, বিদ্রোহীরা চেয়েছিলেন এনসিপি এবং কংগ্রেসের সঙ্গে সমঝোতা ভেঙে ফের বিজেপির সহযোগী হোক শিবসেনা। কারণ, এনসিপি বা কংগ্রেসের চেয়ে আদর্শগত দিক থেকে বিজেপির অনেক কাছাকাছি ছিলেন বালাসাহেব।

উদ্ধব কোনও অবস্থাতেই মহাবিকাশ জোট ছাড়তে রাজি না হওয়ায় শিবসেনা প্রতিষ্ঠাতার হিন্দুত্ববাদী আদর্শকে অনুসরণ করে তারা বিজেপির সঙ্গে হাত মেলাতে বাধ্য হয়েছেন বলে জানান দীপক। পাশাপাশি, সরকারের পতনের জন্য উদ্ধব অনুগামী শিবসেনা নেতা সঞ্জয় রাউতকেও দায়ী ককেন তিনি। দীপক বলেন, ‘প্রতিদিন নিয়ম করে নরেন্দ্র মোদী সরকারের বিরুদ্ধে বিবৃতি দিয়ে কেন্দ্র-রাজ্য সম্পর্ক বিষাক্ত করে তুলছিলেন সঞ্জয়।’

উল্লেখ্য উদ্ধবের ফেসবুক লাইভ চলাকালীনই তার প্রতিনিধি এক মন্ত্রী রাজভবনে গিয়ে রাজ্যপাল কোশিয়ারিকে পদত্যাগের কথা জানান বলে শিবসেনা সূত্রের খবর। ফেসবুক লাইভের বেশ কিছু ক্ষণ পর উদ্ধব মাতোশ্রী থেকে বেরিয়ে নিজেই গাড়ি চালিয়ে যান রাজভবনে। ভবিষ্যতে কংগ্রেস-এনসিপির সঙ্গে জোটের ইঙ্গিত দিয়ে তিনি বলেন, ‘যারা কাছে ছিল তারা এখন দূরে। যারা দূরে ছিলেন, তারা এখন আমাদের কাছে।’’ মুখ্যমন্ত্রী পদ থেকে ইস্তফা ঘোষণার পরে ফেসবুক লাইভে উদ্ধব বলেন, ‘আমার মনে কোনও আক্ষেপ নেই। আমার কাছে শিবসেনা রয়েছে। শিবসৈনিকেরা রয়েছেন।’

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories