Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

সফল জেসিসি বৈঠক, জলবন্টন সহ ৩ ইস্যুতে পারস্পারিক সহযোগিতার ক্ষেত্রে ঐক্যমত পোষণ ভারত-বাংলাদেশের

1 min read

।।প্রথম কলকাতা।।

নদীর জলবণ্টন, দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য এবং সীমান্ত সমস্যা সমাধানের বিষয়ে পারস্পারিক সহযোগিতার ক্ষেত্রে ঐক্যমত পোষণ করল বাংলাদেশ এবং ভারত। রবিবার দিল্লিতে অনুষ্ঠিত ভারত-বাংলাদেশের সপ্তম জেসিসি বৈঠকে এইসমস্ত বিষয়ে একমত প্রকাশ করেন দুই দেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী। এই জেসিসি বৈঠকে যৌথভাবে চেয়ারম্যান হিসেবে ছিলেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন এবং ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এস জয়শঙ্কর। আলোচনা শেষে যৌথ বিবৃতিতে তারা বাংলাদেশের মহান মুক্তিযুদ্ধের মধ্য দিয়ে প্রতিষ্ঠিত দুই দেশের সম্পর্কের উষ্ণতা বিষয়ে সন্তোষ প্রকাশ করেন এবং ‘দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক’ যে অংশীদারত্বের প্রথাগত সীমা অতিক্রম করেছে সেই নিয়ে সন্তোষ প্রকাশ করেন।

উল্লেখ্য দুইদেশের এই সহযোগিতাকে ‘রোল মডেল’ হিসেবে অভিহিত করেন তারা এবং বলেন এই আস্থা ও বিশ্বাসের বন্ধন বিগত এক দশকে আরো মজবুত হয়েছে। এর অনন্য নিদর্শন কান চলচ্চিত্র উৎসবে দুই দেশের যৌথ প্রযোজনায় বঙ্গবন্ধুর জীবনীভিত্তিক বায়োপিক ‘মুজিব- মেকিং অব আ নেশন’ এর ট্রেলার প্রদর্শনের কথা উল্লেখ করেন তারা। একই সঙ্গে ভারতের রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর বাংলাদেশ সফরকালে এবং ২০২০ সালের ডিসেম্বরে দুই দেশের প্রধানমন্ত্রীর ভার্চুয়াল বৈঠকে গৃহীত বিভিন্ন সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নের অগ্রগতি নিয়েও তারা সন্তোষ প্রকাশ করেন।

কোভিড চ্যালেঞ্জের মধ্যেও নিরাপত্তা ও সীমান্তব্যবস্থাপনা থেকে শুরু করে উভয়পক্ষের জন্য সুবিধাজনক ব্যবসা ও বিনিয়োগ প্রবাহের পাশাপাশি দ্বিপাক্ষিক ও উপআঞ্চলিক যোগাযোগ, বৃহত্তর বিদ্যুৎ ও জ্বালানি সহযোগিতা, উন্নয়ন সহায়তা ও ক্ষমতায়ন, সাংস্কৃতিক বিনিময় ও মানুষে মানুষে সম্পর্ক বৃদ্ধিসহ প্রতিটি খাতে সহযোগিতা আরো জোরদার হয়েছে সেই প্রসঙ্গও উঠে এসেছে এই বৈঠকে। এরই মধ্যে বাংলাদেশ যুক্তরাষ্ট্রের দেওয়া র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের ওপর নিষেধাজ্ঞা তুলে নিতে ভারতের সহযোগিতা চেয়েছে।

সেই সঙ্গে মার্কিন নিষেধাজ্ঞার পর রাশিয়ার সঙ্গে সম্পর্ক রক্ষা করা এবং ‘কাউন্টারিং আমেরিকাস অ্যাডভারসারিস থ্রু স্যাংকশনস অ্যাক্ট বা ক্যাটসা আইনকে পাশ কাটিয়ে ভারসাম্য রক্ষা করা নিয়ে ভারতের পরামর্শ চেয়েছে। এ ছাড়াও নিকটতম প্রতিবেশী বন্ধু রাষ্ট্র হিসেবে পশ্চিমা চাপ এড়াতে ভারতকে পাশে চায় বাংলাদেশ। সব মিলিয়ে এই জেসিসি বৈঠক যে বেশ ফলপ্রসূ তাই মনে করছে দুই দেশের কূটনীতিক মহল। বৈঠকটি শুরু হয়ে সকাল ৭টা থেকে রাত সাড়ে ৮টার দিকেও বৈঠক চলছিল। বৈঠকের পর নৈশভোজেরও আয়োজন করেছিল ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories