Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

মণীশ শুক্লা হত্যাকাণ্ডে জড়িত শাসকদলের দাপুটে নেতারা! বিস্ফোরক শুভেন্দু, দাবি CBI তদন্তের

1 min read

।। প্রথম কলকাতা।।

২০২০ সালে খড়দহের বিজেপি নেতা মণীশ শুক্লাকে গুলি করে খুন করা হয় প্রকাশ্যে । সেই খুনের ঘটনায় আসল দোষীরা এখনও পর্যন্ত অধরা বলে দাবি পরিবারের। যদিও ঘটনাটি সিআইডির তদন্তাধীনে রয়েছে কিন্তু এখনও পর্যন্ত এই ঘটনার মূল দোষীদের গ্রেফতার করা হয়নি। বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী রবিবার দলীয় কাজে সেখানে গিয়ে পৌঁছলে দেখা করেন মণীশ শুক্লার পরিবারের সঙ্গে। প্রায় ৪৫ মিনিট তিনি নিহত বিজেপি নেতার বাড়িতে ছিলেন। আর তারপর তিনি সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে বিস্ফোরক মন্তব্য করেন এই হত্যাকাণ্ড নিয়ে।

শুভেন্দু অধিকারী বলেন ,মণীশ শুক্লা খুনের ঘটনায় রাজ্যের এক মন্ত্রী সহ পানিহাটি বিধানসভা কেন্দ্রের বিধায়ক নির্মল ঘোষ সরাসরি যুক্ত রয়েছেন । এছাড়াও তাঁর কথায় , এই হত্যাকান্ডের ন্যায় বিচার সিআইডি করবে না কারণ রাজ্য পুলিশ বা রাজ্যের সিআইডি কখনই এমন কোনো তদন্ত এগিয়ে নিয়ে যাবে না যেখানে রাজ্যের শাসক দলের ক্ষতি হবে । কাজেই মণীশ শুক্লার হত্যাকাণ্ডে তিনি সিবিআই তদন্তের দাবি জানান। নিহত এই বিজেপি নেতা মণীশ শুক্লা সদ্য তৃণমূলে যোগদান করা অর্জুন সিং এর ঘনিষ্ঠ বলে পরিচিত ছিলেন।

কিন্তু তাঁর মৃত্যুর পর তাঁর খুনিদের সঙ্গেই অর্জুন সিং এর ছবি প্রকাশ্যে আসে । এই বিষয়টিকে উল্লেখ করে শুভেন্দু অধিকারী বলেন, দলবদল একেবারেই তাঁর ব্যক্তিগত সিদ্ধান্ত ছিল কিন্তু নিজের ঘনিষ্ঠ ব্যক্তির খুনিদের সঙ্গে ছবি প্রকাশ্যে আসায় মণীশের পরিবার অত্যন্ত দুঃখিত। অন্যদিকে, মণীশ শুক্লার বাবা চন্দ্রমণি শুক্লা। রাজ্য বিজেপি তাকে ডক্টর সেলের কো-কনভেনার পদে নিযুক্ত করেছে। তিনি বর্তমানে শুধু ব্যারাকপুর-টিটাগড়ের বিজেপি নেতৃত্বের স্থানে নন, রাজ্যের বিভিন্ন জেলায় তাকে যেতে হবে বলে জানালেন শুভেন্দু অধিকারী।

এদিকে শুভেন্দু অধিকারীর ওই বিস্ফোরক মন্তব্যের পাল্টা জবাব দিলেন পানিহাটির তৃণমূল বিধায়ক নির্মল ঘোষ। তিনি বলেন, মণীশ শুক্লার পরিবারের সঙ্গে তাঁর সম্পর্ক প্রায় ৫০ বছরের। শুভেন্দু অধিকারী বিজেপির কাছ থেকে খয়ের খেয়েছে ,কাজেই বিজেপির সঙ্গে না থাকলে শুভেন্দু অধিকারীকে বর্তমানে জেলে থাকতে হবে । তাই তাঁর কোনো মন্তব্যকে বিশেষ গুরুত্ব দিতে চাইছেন না তিনি। রাজ্য সরকার মণীশ শুক্লা খুনের ঘটনায় তদন্তভার হাতে নিয়েছে এবং তাঁর হত্যাকাণ্ডের ন্যায় বিচার রাজ্য সরকারই করবেন বলে দাবি করেন তিনি। উল্লেখ্য, ২০২০ সালের ৪ই অক্টোবর টিটাগড় থানা থেকে সামান্য দূরে মণীশ শুক্লাকে গুলি করে খুন করা হয়েছিল । সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখে জানা যায় সেই সময় তাঁর সঙ্গে তাঁর বেশ কয়েকজন সঙ্গী ছিলেন । আর আচমকা মোটর বাইকে করে কয়েক জন দুষ্কৃতী এসে খুব কাছ থেকে তাকে গুলি করে।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories