Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

অগ্নিপথ নিয়ে ক্ষুব্ধ বিজেপির জোটসঙ্গী নীতিশও, জানানো হল সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনার আর্জি

1 min read

।।প্রথম কলকাতা।।

অগ্নিপথ প্রকল্প ঘিরে উত্তপ্ত গোটা দেশ। একাধিক জায়গায় চলচে বিক্ষোভ, জ্বালিয়ে দেওয়া হচ্ছে ট্রেন চলছে অবরোধ। এই অগ্নিপথ নিয়ে অসন্তুষ্ট বিজেপির জোটসঙ্গী নীতিশ কুমারের দল। অগ্নিপথ প্রত্যাহারের দাবি জানালেন নীতিশ।দেশ জুড়ে যে অসন্তোষ চলছে তাতে শামিল হলেন নীতীশ কুমারের দল। জোটসঙ্গী হলেও বিজেপি-র ‘অগ্নিপথ’ প্রকল্প নিয়ে অসন্তুষ্ট নীতিশ।তার মত এর ফলে শুধু যুবসমাজের ভবিষ্যৎই যে অনিশ্চিত হয়ে পড়ছে তা নয়, দেশের নিরাপত্তাও বিঘ্নিত হতে পারে। তাই এই নয়া প্রকল্প পুনর্বিবেচনা করে দেখার আর্জি জানিয়েছেন তারা। 

একের পর এক ট্রেন যখন দাউদাউ করে জ্বলছে সেই সময় ট্যুইটারে মুখ খোলেন সংযুক্ত জনতা দলের সভাপতি রাজীবনরঞ্জন সিংহ। তিনি লেখেন, ‘অগ্নিপথ প্রকল্প ঘিরে যুবসমাজ এবং পড়ুয়াদের মধ্যে অসন্তোষ, হতাশা এবং অনিশ্চিত ভবিষ্যতের আশঙ্কা স্পষ্ট। বিহারও তার ব্যাতিক্রম নয়। কেন্দ্রের উচিত অবিলম্বে অগ্নিপথ প্রকল্প পুনর্বিবেচনা করে দেখার। কারণ তাদের এই সিদ্ধান্ত দেশের প্রতিরক্ষা এবং নিরাপত্তার সঙ্গেও যুক্ত।’

বিহারের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা হিন্দুস্তানি আওয়াম মোর্চার প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট জিতন রাম মাঝি বলেন, “অগ্নিপথ প্রকল্প দেশের জন্য অত্যন্ত বিপজ্জনক, দেশের যুবসমাজের জন্যও। তাই অবিলম্পে এই প্রকল্প প্রত্যাহার করে নেওয়া উচিত। প্রধানমন্ত্রীকে অনুরোধ, অবিলম্বে এই প্রকল্প তুলে নিন। সেনায় নিয়োগের আগের নিয়মই বহাল রাখা হোক।”

অগ্নিপথ প্রকল্পে বলা হয়েছে, চার বছরের জন্য জওয়ানদের নিয়োগ করা হবে। ১৭.‌৫ থেকে ২১ বছর বয়সি তরুণরা নিযুক্ত হবেন। সে সময় ৩০ থেকে ৪০ হাজার টাকা বেতন এবং ভাতা পাবেন। চার বছর পর ২৫ শতাংশকে কাজে রেখে বাকিদের ছেঁটে ফেলা হবে। তারা পিএফ বা গ্র‌্যাচুইটির সুবিধাও পাবেন না। এমনকী পেনশনের ব্যবস্থাও থাকবে না। এতেই চটেছেন দেশের তরুণদের বড় অংশ। যেসব রাজ্য থেকে সেনাবাহিনীতে যোগদানের হার বেশি, সেখানে বিক্ষোভের আগুন জ্বলে উঠেছে।দেশের প্রাক্তন সেনাপ্রধানরাও এই প্রকল্পের বিরোধী। তাদের মতে, অস্থায়ী পদে নিযুক্ত জওয়ানদের সীমান্ত রক্ষা বা নিরাপত্তা নিয়ে কোনও দায় থাকবে না। বিপন্ন হতে পারে দেশের নিরাপত্তা।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories