Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

প্রতিনিয়ত গোষ্ঠীদ্বন্দ্বের ঘটনায় অস্বস্তি বাড়ছে শাসক শিবিরে, কসবা কাণ্ডে গ্রেফতার ৫

।। প্রথম কলকাতা।।

কসবায় এক তৃণমূল কর্মীর ফ্ল্যাটে হামলা চালানোর ঘটনায় বর্তমানে উত্তপ্ত সেখানকার পরিস্থিতি। ঘটনাটি কলকাতা পুরসভার অন্তর্গত ১০৭ নম্বর ওয়ার্ডে ঘটে। কিন্তু এই ঘটনার নেপথ্যে ১০৮ নম্বর ওয়ার্ডের তৃণমূল কাউন্সিলর রয়েছেন বলে অভিযোগ ওঠে। এই ঘটনার সিসিটিভি ক্যামেরার ফুটেজ খতিয়ে দেখে অবশেষে কসবা থানার পুলিশ গ্রেফতার করে পাঁচ জনকে। স্বাভাবিকভাবেই তৃণমূল কর্মীর বাড়িতে তৃণমূল কর্মীদেরই হামলার ঘটনায় গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব একেবারে স্পষ্ট। তবে এই গোষ্ঠীদ্বন্দ্বের তত্ত্ব একেবারে উড়িয়ে দিয়েছেন ১০৭ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর লিপিকা মান্না। এই ঘটনাকে তিনি গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব বলে মানতে নারাজ।

১০৭ নম্বর ওয়ার্ডের পি মজুমদার রোডের বাসিন্দা হলেন বাপি দেব। তিনি ওই ওয়ার্ডের তৃণমূল কাউন্সিলর লিপিকা মান্নার অনুগামী বলে জানা যায় । তবে তাঁর দাবি, একসময় ১০৮ নম্বর ওয়ার্ডের তৃণমূল কাউন্সিলর সুশান্ত ঘোষের সঙ্গে বেশি ঘনিষ্ঠতা ছিল তাঁর। তবে সম্প্রতি তিনি লিপিকা মান্নার সঙ্গে রয়েছেন। কারণ ঠিকাদারি করার সূত্রে সুশান্তবাবু সঙ্গে মনোমালিন্য হয় বাপির। যার কারণেই তাঁর বাড়িতে দুষ্কৃতী দিয়ে হামলা করানো হয়েছে বলে অভিযোগ ওঠে। শুক্রবার রাতে তাঁর ফ্ল্যাট লক্ষ্য করে রীতিমতো ইট, পাথর এবং বিয়ারের বোতল ছোড়া হয় বলে অভিযোগ। যা ধরা পড়ে সিসিটিভি ক্যামেরার ফুটেজ।

এই ঘটনায় যদিও পাঁচজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে কিন্তু তৃণমূল কাউন্সিলর সুশান্ত ঘোষের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ তিনি একেবারে উড়িয়ে দিয়েছেন । তাঁর দাবি, বাপি কোন এক মহিলাকে কটুক্তি করেছিল যার জন্য এই ঝামেলার সূত্রপাত। আর সে কোনোদিনই বাপির ঘনিষ্ঠ ছিল না। অন্যান্য কর্মীর মতোই সে ছিল। তবে তোলাবাজি করার জন্য তাকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছিল। পাল্টা সুশান্ত ঘোষের দাবি, তাকে এই ঘটনায় মিথ্যা দোষারোপ দিয়ে জড়ানো হচ্ছে। আর এর পেছনে হাত রয়েছে মন্ত্রী জাভেদ খানের। আরও কিছু চাঞ্চল্যকর তথ্য প্রকাশ এনেছেন তিনি। তাঁর দাবি তাকে ফাঁসানোর জন্য তাঁর বাড়ির নিচে অপরিচিত মহিলা বসিয়ে রাখা হতো ।

কাজেই কসবা কান্ডকে ঘিরে ইতিমধ্যেই ঘাসফুল শিবিরে অন্তর্দ্বন্দ্ব দেখা দিয়েছে। মন্ত্রীর বিরুদ্ধে কাউন্সিলরের পরোক্ষ ইঙ্গিত এবং দুই ওয়ার্ডের কাউন্সিলর এর মধ্যে সংঘর্ষ তৃণমূল কংগ্রেসের গোষ্ঠীদ্বন্দ্বকে বারে বারে প্রকাশ্যে আনছে।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories