Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

গাড়ি ফ্ল্যাট সবই আমাদের টাকায়, বিস্ফোরক দাবি সাগ্নিকের মায়ের

|| প্রথম কলকাতা ||

সমস্ত অভিযোগের বয়ান শুনে আজই বিচারক সাগ্নিক চক্রবর্তীকে ৯ দিনের জেল হেফাজতের নির্দেশ দেন। এরই মধ্যে সাগ্নিক চক্রবর্তীকে নিয়ে উঠেছে অনেক বিস্ফোরক মন্তব্য। এরপরেই গাড়ি ও ফ্ল্যাট নিয়ে অকপট কথা বললেন সাগ্নিকের মা।

সাগ্নিকের মা জানান পল্লবী দে’র বাড়ির লোকজন এখন যে অডি গাড়িটি ব্যবহার করছেন সেটা কেনার জন্য সাগ্নিকের মা সাগ্নিককে ৯লক্ষ টাকা দিয়েছিলেন। এমনকি রাজারহাটে যে ফ্ল্যাট কেনার প্রসঙ্গ বারবার উঠে আসছে সেখানেও সাগ্নিকের বাড়ির লোক টাকা দিয়েছিলেন। ৪৩ লক্ষ টাকা নগদ ও ব্যাংকের ঋণ দিয়ে কেনা হয় ফ্ল্যাট। সেখানে কোনো টাকা ব্যয় করেননি পল্লবী দে। ইতিমধ্যেই এসব কাগজপত্র পুলিশের কাছে জমা দিয়েছেন সাগ্নিকের মা সন্ধ্যা চক্রবর্তী।

তিনি জানান সাগ্নিকের সাথে পল্লবী দে’র এই লিভ ইনে থাকাকে তাঁরা কখনওই সম্মতি দেননি। পল্লবীর বাড়ির উদ্যেগেই তাঁরা দুজন এক সাথে ফ্ল্যাটে থাকা শুরু করে। এরপরে পল্লবী মৃত্যু রহস্যে উঠে আসা ঐন্দ্রিলার ব্যাপারে সন্ধ্যা দেবীকে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি স্পষ্ট জানান ওই বিষয়ে তিনি কিছু জানেন না। তবে সাগ্নিক তাঁর মা কে জানিয়েছিল পল্লবীর বন্ধুই হলো ঐন্দ্রিলা এবং পল্লবী মাঝে মাঝেই তাঁকে বাড়িতে ডাকত মদ্য পান ও আড্ডা দেওয়ার জন্য।

পল্লবী দে’র মৃত্যু ঘিরে একের পর এক নয়া চাঞ্চল্যকর ঘটনার কথা উঠে আসছে। কিন্তু ঘটনার শেষ পরিণতি কি? কি ঘটেছিলো সেদিন? ইতিমধ্যে আলিপুর আদালতের বিচারকের নির্দেশে পুলিশি হেফাজতে সাগ্নিক। ২৬ মে অবধি তাঁকে পুলিশি হেফাজতে রাখারই নির্দেশ।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories