Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

গরমে হাঁপ ছেড়ে বাঁচতে চান ? রইলো শীতল মনোরম কয়েকটি জায়গার হদিশ

।। প্রথম কলকাতা ।।

গরমে অনেকেই একটুও শীতলতম স্থানে ঘুরতে যেতে ভালোবাসেন। ভারতের এমন কিছু জায়গা রয়েছে যেখানে এই গরমে গেলে আপনি স্বস্তি পাবেন। যদিও বিশেষ করে গ্রীষ্মকালে ভ্রমণের জন্য সঠিক গন্তব্য খুঁজে পাওয়া একটু সমস্যার, কারণ বেশিরভাগ জায়গাতেই মে এবং জুন মাসে তাপমাত্রা একটু বেশি থাকে। ভারতের এমন কিছু জায়গা রয়েছে যেখানে এই গরমে আপনি গেলে ঠাণ্ডা অনুভূতি পাবেন।

চেরাপুঞ্জি
যদি প্রকৃতিপ্রেমী হয়ে থাকেন তাহলে মোক্ষম জায়গা হবে চেরাপুঞ্জি। এই জায়গাটি প্রকৃতিপ্রেমীদের কাছে স্বর্গের থেকে কম নয়। গ্রীষ্মকালেও এখানে বেশ ঠাণ্ডা থাকে । এখানে গেলে দেখতে পাবেন সুন্দর জলপ্রপাত, এছাড়াও রয়েছে ডাবল ডেকার রুট ব্রিজ।

কাসোল
হিমাচল প্রদেশের কুল্লুতে অবস্থিত প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ঘেরা কাসোল হল একটি ছোট্ট গ্রাম। পাশাপাশি এখানে উপভোগ করতে পারবেন পার্বতী নদী এবং তোশ গ্রামের সৌন্দর্য। প্রতি বছর ভারতীয়দের পাশাপাশি বহু বিদেশী পর্যটক এই গ্রামে ঘুরতে আসেন । কাসোলে খিরগঙ্গা ট্রেক বেশ ভালো।

তীর্থন উপত্যাকা
গ্রেট হিমালয়ান ন্যাশনাল পার্ক থেকে মাত্র কয়েক কিলোমিটার গেলেই দেখতে পাবেন তীর্থন উপত্যাকা। আপনি যদি একটু শীতল পরিবেশে বিভিন্ন দৃশ্য দেখতে পছন্দ করেন তাহলে এই জায়গাটি উপযুক্ত। গ্রীষ্মকালে এখানে তাপমাত্রা থাকে প্রায় ১০ডিগ্রি সেলসিয়াস থেকে ২৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। দিল্লি থেকে মাত্র এক রাতের যাত্রায় আপনি এখানে পৌঁছাতে পারেন।

কুনুর
তামিলনাড়ুর কুনুর নামক এই হিল স্টেশনটি চা বাগানের জন্য বেশ বিখ্যাত। দূরদূরান্ত থেকে বহু প্রকৃতিপ্রেমী মানুষ এখানে আসেন। পাশাপাশি আপনি যদি অ্যাডভেঞ্চার প্রিয় হন তাহলে এই স্থানে আসতে পারেন । শান্ত এবং সুন্দর দৃশ্যের পরিবেশে মন ভাল হতে বাধ্য।

আউলি
গ্রীষ্মের গরম থেকে পালাতে ভ্রমণে যেতে পারেন ভারতের আউলিতে । এটি ভারতের অন্যান্য শীতলতম স্থান গুলির মধ্যে একটি। গ্রীষ্মের মৌসুমেও আপনি এখানে বরফে ঢাকা পাহাড় দেখতে পাবেন। পাশাপাশি রয়েছে সবুজের সমারোহ।

মিরিক
পশ্চিমবঙ্গের অন্যতম একটি সুন্দর হিল টেশন হল মিরিক। আপনি যদি কাছাকাছি কোথাও যেতে পছন্দ করেন তাহলে গ্রীষ্মকালে কয়েকদিনের জন্য ঘুরে আসতে পারেন এই পর্যটন স্থান থেকে । এখানে তাপমাত্রা থাকে গড়ে ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াস থেকে ২০ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত । এখানে রয়েছে অরেঞ্জ অর্কিড, চা বাগানের পাশাপাশি সুন্দর প্রাকৃতিক দৃশ্য।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories