Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

১০০ দিনের কাজে টাকা দেয়নি কেন্দ্র, মমতার অভিযোগের পাল্টা দিলীপ বলছেন পেনশন-ডিএ’র কথা

1 min read

।। প্রথম কলকাতা।।

১০০ দিনের কাজের টাকা দিচ্ছে না কেন্দ্রীয় সরকার। একাধিকবার এই অভিযোগ করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি দিয়ে রাজ্যের বকেয়া ১০০ দিনের কাজের টাকা দ্রুত মিটিয়ে দেওয়ার দাবি করেছেন মুখ্যমন্ত্রী। গতকাল পশ্চিম মেদিনীপুরের প্রশাসনিক বৈঠক থেকে ১০০ দিনের কাজ নিয়ে বেশ কিছু বক্তব্য রাখেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee)। প্রথমেই উষ্মা প্রকাশ করেন, কেন্দ্রীয় সরকার ১০০ দিনের কাজে রাজ্যের পাওনা টাকা দিচ্ছে না। এরপর মুখ্যমন্ত্রী জানান, ফান্ড তৈরি করে তা থেকে ১০০ দিনের কাজের মজুরির টাকা দেওয়া হবে। এরপর এই ইস্যুতে মুখ্যমন্ত্রীকে তীব্র কটাক্ষ করলেন বিজেপির সর্বভারতীয় সহ সভাপতি দিলীপ ঘোষ। তিনি জানান, আগে পেনশন দিন, ডিএ দিন, ভর্তুকি পরে হবে

গতকাল মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন, যেসব দপ্তরে কারিগরি প্রশিক্ষণের প্রয়োজন আছে, সেগুলো বাদ দিয়ে অন্যান্য দপ্তরের কাজের জন্য ১০০ দিনের কাজের প্রকল্পের শ্রমিকদের নেওয়া যেতে পারে। এই লক্ষ্যে বিশেষ তহবিল তৈরি করা হবে। যা হলো ক্রাইসিস ম্যানেজমেন্ট ফান্ড। এই তহবিল থেকে মজুরির টাকা দেওয়া হবে। মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছিলেন, লোককে কাজ দেওয়া হবে, কিন্তু তাদের মজুরি দেওয়া হবে না। সেটা ঠিক নয়। পেট্রোল-ডিজেলের দাম আগুন, ওষুধের দাম বাড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। একশো দিনের প্রকল্পে কাজ করে সংসার চালান গরীব মানুষেরা।

১০০ দিনের কাজ নিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর এই বক্তব্যের পাল্টা জবাবে বিজেপির সর্বভারতীয় সহ সভাপতি দিলীপ ঘোষ জানালেন, “আগে পেনশন দিন, ডিএ দিন, ভর্তুকি পরে হবে। এসব গল্প কোন লাভ আছে নাকি? তিন বছর বাকি আছে সরকারি কন্টাকটাররা টাকা পান না। তাঁরা কেউ কাজ করতে পারছেন না। রাস্তা খারাপ হয়ে গেছে। কেউ কাজ নিচ্ছেন না। কাজ করে যাচ্ছেন, টাকা তিন বছর ধরে বাকি আছে। এরকম করে আর চলবে না।”

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories