Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

মেয়ের শ্বশুর-বাড়িতে অশান্তি, মীমাংসা করতে এসে প্রতিবেশীর হাতে খুন বাবা

।। প্রথম কলকাতা।।

বিয়ের পর থেকেই তাঁর স্বামীর সঙ্গে মেয়ের প্রায়ই অশান্তি লেগে থাকে। সেই রকমই এক বিবাদের মীমাংসা করতে মেয়ের শ্বশুর বাড়িতে এসে উপস্থিত হয়েছিলেন বাবা । আর তারপর ঘটল ভয়ঙ্কর পরিণতি। প্রতিবেশীর হাতে খুন হতে হল বাবাকে । এমনই চাঞ্চল্যকর ঘটনা ঘটেছে মালদা জেলা চাঁচল থানার অন্তর্গত হলদিবাড়ি এলাকায়। জানা যায়, মেয়ের শ্বশুর বাড়িতে এসে গন্ডগোলের মীমাংসা করতে গিয়ে প্রতিবেশী এক মহিলার সঙ্গে বিবাদে জড়িয়ে পড়েন তিনি । আর তারপর ওই প্রতিবেশী মহিলার পরিবারের লোকজনেরা তাকে বেধড়ক মারধর করে, যার ফলে মৃত্যু হয় তাঁর।

নিহত ওই ব্যক্তির নাম আব্দুল হক। তাঁর চার মেয়ে এবং স্ত্রীকে নিয়ে সংসার। এক মেয়ের বিয়ে দিয়েছেন বছরখানেক আগে হলদিবাড়ি এলাকার রোস্তম শেখের সঙ্গে। কিন্তু মেয়ে চুমকির সঙ্গে জামাইয়ের প্রায়ই কোন না কোন বিষয়কে কেন্দ্র করে অশান্তি বাঁধে। গতকালও এই ধরনের একটি ঘটনা ঘটায় গন্ডগোলের মীমাংসা করতে মেয়ের শ্বশুর বাড়িতে এসে উপস্থিত হয়েছিলেন আব্দুল। কিন্তু মেয়ের পারিবারিক অশান্তির মধ্যে প্রতিবেশী এক মহিলা হস্তক্ষেপ করে যার ফলে আব্দুল এর সঙ্গে ওই মহিলার বচস বাধেঁ ।তখন দু’পক্ষের মধ্যে ঝামেলা মিটে গেলেও শুক্রবার বিকেল বেলায় প্রতিবেশী মহিলা তাঁর ছেলে এবং অন্যান্য আত্মীয়দের নিয়ে চড়াও হয় আব্দুলের উপর।

বাঁশ দিয়ে বেধড়ক মারধর করা হয় আব্দুলকে । এই ঘটনার পর তাকে তড়িঘড়ি উদ্ধার করে প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নিয়ে আসা হয় । কিন্তু অবস্থার অবনতি হওয়ায় শুক্রবার রাতে তাকে নিয়ে যাওয়া হয় মালদা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে। তবে চিকিৎসা চলাকালীন শনিবার সকালে মৃত্যু হয় আব্দুল হকের। বর্তমানে মৃতদেহটিকে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। আর এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে শোকের ছায়া পরিবারে। যদিও অভিযুক্ত প্রতিবেশীর বিরুদ্ধে চাঁচল থানার লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। কিন্তু তাঁর মৃত্যুর পর অভিযুক্তরা এলাকাছাড়া। অভিযুক্তদের খুঁজে বের করার চেষ্টা চালাচ্ছে চাঁচল থানার পুলিশ।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories