Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

পুরুষদের টাক মাথা নিয়ে বিদ্রুপ যৌন হেনস্থার সমান ! কঠিন শাস্তি পাবে অভিযুক্তরা

।। প্রথম কলকাতা ।।

চুল পড়ার সমস্যা বেশিরভাগ মানুষের কাছে রীতিমত স্বাভাবিক হয়ে গিয়েছে । তবে যাদের টাকমাথা তাদেরকে আমাদের সমাজে নানান ধরনের বিদ্রুপ কিংবা ব্যঙ্গাত্মক কথা শুনতে হয় । এবার টাক নিয়ে যদি কাউকে কটূক্তি করা হয় তা যৌন হেনস্থার সমান, এমনটাই জানিয়েছে ইংল্যান্ডের এমপ্লয়মেন্ট ট্রাইব্যুনাল। কর্ম ক্ষেত্রে কেউ যদি কোন ব্যক্তির টাক মাথা নিয়ে কটূক্তি করেন তাহলে একটা মহিলা সহকর্মীর স্তনের আকার নিয়ে কথা বলার সমান অর্থাৎ টাক মাথা নিয়ে যে কোন ধরনের কটুক্তি যৌন হেনস্থার সমতুল্য।

টনি ফিন নামক এক ব্যক্তি মামলা দায়ের করেছিলেন। তিনি জানান তিনি পশ্চিম ইয়র্কশায়ারের একটি সংস্থায় ইলেকট্রিশিয়ান হিসেবে কর্মরত ছিলেন প্রায় ২৪ বছর। ব্রিটিশ বাঙ্গ নামক এই কোম্পানিতে অন্যান্য সহকর্মীরা তার মাথার টাক নিয়ে নানান ধরনের বিদ্রুপ করতেন। এমনকি তার সাথে অন্যায় আচরণ করে বরখাস্ত করা হয়েছে, তাই তিনি অভিযোগ জানান ট্রাইব্যুনালে। পাশাপাশি তিনি অভিযোগ করেছিলেন তার বয়স নিয়ে নানান ধরনের অন্যায় আচরণ করা হত। যদিও ট্রাইবুনাল সেই বিষয়টিকে খারিজ করে দিয়ে বাকি অন্যান্য অভিযোগগুলিকে গ্রহণ করে বিচার শুরু করে।

আবেদনকারীর অভিযোগ অনুযায়ী, ২০১৯ সালের জুলাই মাসে কারখানার সুপারভাইজার জেমি কিং বিবাদ চলাকালীন টাক মাথা নিয়ে কটূক্তি করেন , পাশাপাশি তাকে হুমকিও দিয়েছিলেন। কিন্তু এই বিষয়ে ওই সংস্থার পক্ষ থেকে কোন পদক্ষেপ নেওয়া হয়নি, তাই তিনি বাধ্য হয়ে অভিযোগ জানান ট্রাইব্যুনালে। কর্মস্থলে মহিলারা যৌন হেনস্থার শিকার , এই ঘটনাটি প্রায় সময় শুনতে পাওয়া যায় । কিন্তু পুরুষরা যৌন হেনস্থার শিকার এই ধরনের তথ্য খুব একটা সামনে আসে না। এক্ষেত্রে অভিনব রায় দিয়েছে ওই ট্রাইব্যুনাল। জানিয়েছে টাক মাথা নিয়ে কর্মস্থলে কটুক্তি করার যৌন হেনস্তার সমান। পরে অভিযুক্তদের বিচার করে যথাযথ শাস্তি দেওয়ার ব্যবস্থা করা হবে।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories