Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

অবৈধভাবে নদীর মাটি তুলে বিক্রি করছেন তৃণমূল নেতা, প্রশাসনের দ্বারস্থ দলের কর্মীরাই

।। প্রথম কলকাতা।।

পূর্ব বর্ধমানের দলুইবাজার ২ নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েতের উপপ্রধান ও জেলা পরিষদ সমস্যার স্বামী গৌতম রায়ের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ এনেছেন তাঁর দলের কর্মীরাই। তৃণমূল কর্মীদের অভিযোগ, দামোদর নদের মানার কাছ থেকে অবৈধভাবে মাটি তুলে বিক্রি করে দিচ্ছেন গৌতম রায়। দীর্ঘসময় ধরে এই কারবার চলছে। যার ফলে নদের মানা ভেঙে গিয়ে বর্ষায় বড় রকমের আশঙ্কা দেখা দিতে পারে।

স্থানীয় তৃণমূল কর্মীদের একাংশ অভিযোগ করেছেন, উপপ্রধান গৌতম রায় ৮ নম্বর বালি খাদান থেকে বালি না তুলে দামোদর নদের মানার কাছ থেকে মাটি কাটাচ্ছেন। প্রতিদিন ৬০ থেকে ৭০ টি ট্রাক্টরের ট্রলিতে করে এই মাটি বিক্রি করে দিচ্ছেন। যার ফলে মানা ভেঙে পড়ছে। যা থেকে জল সংকটের আশঙ্কাও তৈরি হচ্ছে।

তৃণমূল কর্মীরা অভিযোগ করেছেন, দীর্ঘ ৭ সাত বছর ধরে নদী থেকে মাটি কেটে বিক্রি করছেন উপপ্রধান। কিন্তু গত একমাস ধরে মানার কাছ থেকে মাটি কেটে বিক্রি করতে শুরু করেছেন তিনি। এর ফলে মানা যেমন ভেঙে যাচ্ছে, তেমনি জল সংকট তৈরি হতে পারে এলাকায়। তাঁর অন্যায় কাজ নিয়ে কেউ প্রতিবাদ করার সাহস দেখাচ্ছেন না। কিন্তু এর ফলে কৃষক ও সাধারণ মানুষ রাগে ফুঁসছেন।

যদিও সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেছেন গৌতম রায়। তিনি জানিয়েছেন, বৈধভাবে লিজ নিয়ে তিনি খাদান চালাচ্ছেন। তৃণমূল বিধায়ক মধুসূদন ভট্টাচার্যের সঙ্গে তাঁর সুসম্পর্ক নেই বলেই এই ধরনের অভিযোগ করা হচ্ছে। তাঁর অভিযোগ, সামাজিকভাবে তাঁকে অপদস্ত করার চেষ্টা করছেন বিধায়কের অনুগামীরা। তবে, তৃণমূল কর্মীদের একাংশ গণস্বাক্ষর করা অভিযোগ পত্র অতিরিক্ত জেলা শাসক ও মহকুমা শাসকের কাছে জমা দিয়েছেন। প্রশাসন যদি উপযুক্ত ব্যবস্থা না নেয়, তবে বড়োসড়ো আন্দোলনে নামার হুঁশিয়ারি দিয়েছেন তৃণমূল কর্মীরা।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories