Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

রমজানে রোজা না রাখলেও পাপ লাগবে না ! কিন্তু কারা পাবেন এই ছাড় ?

।। প্রথম কলকাতা ।।

ইসলামে বিশ্বাসী প্রত্যেক ব্যক্তি রমজানে মাসব্যাপী রোজা রাখেন। তবে শিশু, গর্ভবতী মহিলা এবং অসুস্থ ব্যক্তিদের রোজা থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া যারা দূরে ভ্রমণে আছেন তাদেরও রোজা থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে। মনে করা হয় বিশেষ কিছু অসুবিধার কারণে, যদি সেই ব্যক্তি রোজা না রাখেন সে ক্ষেত্রে কোন পাপ হয় না।

• কোনো অসুস্থ ব্যক্তিকে না খেয়ে থাকতে চিকিৎসক নিষেধ করেছেন। অথবা তিনি যদি এমন কোনো ওষুধ খান, যা বন্ধ করলে রোগ বাড়বে, তাহলে তিনি রোজা নাও রাখতে পারেন।

•কেউ যদি দীর্ঘ সময়ের জন্য বা অনেক দূরে সফরে থাকেন এবং রোজা রাখতে সমস্যা হতে পারে, তাহলে রোজা বাদ দেওয়া যেতে পারে। কিন্তু বাদ পড়া রোজার পরবর্তীতে রোজা রেখে শেষ করতে হবে।

• একজন গর্ভবতী মহিলা বা একজন সদ্য মা যিনি সন্তানকে দুধ খাওয়ান , তিনিও রোজা না রাখতে পারেন।

• বয়স্ক ও ছোট শিশুদেরও রোজা থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়েছে। মেয়েরা ১১ থেকে ১৩ বছরের পর থেকে রোজা রাখতে পারবেন এবং ছেলেরা ১৩ থেকে ১৫ বছরের পর থেকে রোজা রাখতে পারবেন।

রোজা না রাখার ক্ষতিপূরণ : ফিদিয়া

যদি অসুস্থ বা গর্ভবতী মহিলারা রোজা না রাখতে পারেন তার পরিবর্তে ফিদিয়ার মাধ্যমে রোজার কর্তব্য পালন করতে হবে। অর্থাৎ রমজান মাসের প্রত্যেকটি দিন দরিদ্র ও অসহায় ব্যক্তিদের খাবার দান করতে হবে। আরে কেউ যদি কোন একদিন বিশেষ কারণবশত রোজা না রাখতে পারেন তিনিও ফিদিয়া করতে পারেন। মনে করা হয় কেউ যদি রমজান মাসে উপবাস পালন না করে কোনো দরিদ্র ক্ষুধার্ত মানুষকে পেট ভরে খাওয়ানো হয়, সে ক্ষেত্রে কোন পাপ লাগে না।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories