Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

ধর্ষণের পর খুন তরুণীকে! কাঠগড়ায় বাড়ির ভাড়াটে রাজমিস্ত্রি

।। প্রথম কলকাতা।।

চলতি মাসে বিগত কয়েকদিনের মধ্যে বার বার ধর্ষণ এবং তারপর নৃশংস খুনের ঘটনা উঠে আসছে প্রকাশ্যে। প্রথমে মাটিয়া তারপর মালদা আর এবার পশ্চিম মেদিনীপুরের ডেবরা। সেখানে এক তরুণীকে ধর্ষণ করার পর খুন করার অভিযোগ উঠল রাজমিস্ত্রির বিরুদ্ধে । ওই রাজমিস্ত্রি তরুনীর বাড়িতেই ভাড়া থাকতো বলে অভিযোগ। ঘটনাটি ঘটে পশ্চিম মেদিনীপুর ডেবরা বাড়াগড়ে। যদিও এই ঘটনার পর থেকেই অভিযুক্ত পলাতক। অভিযুক্তের তল্লাশি শুরু করেছে পুলিশ।

জানা যায়, বেশ কিছু মাস ধরে ডেবরাতে একটি বহুতল আবাসন তৈরির কাজ চলছে। সেই কাজের জন্য মুর্শিদাবাদ থেকে বেশ কয়েকজন রাজমিস্ত্রি সেখানে এসেছিল বলে জানা যায় । তাদের মধ্যে চারজন রাজমিস্ত্রি ওই তরুনীর বাড়িতে ভাড়া থাকতো। তরুণীর মৃতদেহ উদ্ধারের পর ওই চারজন রাজমিস্ত্রির মধ্যে একজন আপাতত উধাও বলে জানা গিয়েছে। তাই ওই তরুণীর পরিবারের অভিযোগ ,সর্বেশ্বর প্রামানিক নামে ওই রাজমিস্ত্রি তাদের মেয়েকে ধর্ষণ করে এবং তারপরে খুন করে।

পরিবার সূত্রে খবর ওই তরুণী উচ্চশিক্ষার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছিল। অন্যান্য দিন একাই নিজের সময়মতো ঘুম থেকে উঠে যায় সে । কিন্তু বৃহস্পতিবার বেলা অনেক বেড়ে গেলেও তার বাড়ির লোক কোনোরকম সাড়াশব্দ পায় নি । অবশেষে তাঁর ঘরে তাকে ডাকতে যায় পরিবারের সদস্যদের একজন । তখনই দেখতে পায় ওই তরুণী অচৈতন্য অবস্থায় ঘরের মধ্যে পড়ে রয়েছে এবং তাঁর গায়ে হাতে ও গলায় গভীর ক্ষতের চিহ্ন রয়েছে।

সঙ্গে সঙ্গে খবর দেওয়া হয় ডেবরা থানার পুলিশকে। ঘটনাস্থলে এসে উপস্থিত হয় পুলিশ এবং ওই তরুণীর মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়। যদিও পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, ময়নাতদন্তের রিপোর্ট যতক্ষণ না পর্যন্ত হাতে আসছে ততক্ষণ কীভাবে ওই তরুণীর মৃত্যু হয়েছে তা নিশ্চিত ভাবে জানা যাবে না। কিন্তু এই ঘটনায় বাকি তিন রাজমিস্ত্রিকে আটক করা হয়েছে । তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ করছে পুলিশ। পাশাপাশি পলাতক রাজমিস্ত্রি সর্বেশ্বর প্রামাণিকের খোঁজ চালাচ্ছেন তাঁরা।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories