Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

ব্যাঙ্ক ম্যানেজার হিসেবে চিনতেন প্রতিবেশীকে, ৩কোটি টাকার প্রতারণা বৃদ্ধের সঙ্গে

।। প্রথম কলকাতা।।

কলকাতা শহরের বুকে এর আগেও প্রতারকরা তাদের প্রতারণার জালে ফাঁসিয়েছে বহু প্রবীণ নাগরিককে। আর তারপর নিজেদের ইচ্ছেমতো প্রতারণা করে গিয়েছে তাদের সঙ্গে। আবারও সেই একই রকম ঘটনা ঘটলো কলকাতার সল্টলেকে। সেখানকার এফ আই ব্লকের বাসিন্দা হলেন রবীন্দ্রনাথ সাহা । তাঁর প্রতিবেশী নিজেকে ব্যাঙ্ক ম্যানেজার বলেই পরিচয় দিতেন আর তাঁর উপরেই ভরসা করে অবশেষে তিন কোটি টাকা খোয়ালেন বছর আশির এই বৃদ্ধ ।

বড় প্রতারণার ছকে পা দিয়েছেন বুঝতে পেরে বিধান নগর দক্ষিণ থানার পুলিশের দ্বারস্থ হন তিনি। রবীন্দ্রনাথ সাহা জানান ,তাঁর প্রতিবেশী হলেন সৌগত মিশ্র । সে নিজেকে ওই বৃদ্ধের কাছে ব্যাঙ্ক ম্যানেজার হিসেবেই পরিচয় দিত। বৃদ্ধকে ব্যাঙ্কের বিভিন্ন কাজে সহযোগিতা করার জন্য প্রতিশ্রুতি দিত বারবার। তাঁর নিজেরও বয়স হয়েছিল, সব সময় ব্যাঙ্কে যাওয়া সম্ভব হতো না। তাই প্রতিবেশীর উপর ভরসা করে দীর্ঘদিন তাকে দিয়ে ব্যাঙ্কের টাকা লেনদেন করাতেন। আর সেই বিশ্বাসের সুযোগ নিয়েই এমন প্রতারণা প্রতিবেশীর ।

সব মিলিয়ে ওই প্রতিবেশী ব্যাঙ্ক ম্যানেজার বৃদ্ধের কাছ থেকে প্রায় তিন কোটি টাকার ওপর হাতিয়ে নিয়েছেন বলে জানা যায়। বৃদ্ধের সন্দেহ হয় তখনই যখন তিনি ওই প্রতিবেশীর কাছ থেকে তাঁর ব্যাঙ্কের পাস বই চান । কিন্তু সে পাস বই দিতে রাজি হয় না। যার ফলে বৃদ্ধ ব্যাঙ্কে গিয়ে কথা বলেন ব্যাঙ্ক আধিকারিকদের সঙ্গে। তারপর তিনি জানতে পারেন যে তাঁর অ্যাকাউন্ট থেকে বারবার টাকা তোলা হয়েছে । ওই বৃদ্ধ মাঝেসাঝেই টাকার অঙ্ক না লিখে খালি চেকেই সই করে প্রতিবেশীকে দিয়ে দিতেন। সেখান থেকেই এই ধরনের প্রতারণা বলে অনুমান পুলিশের।

এই ঘটনার কথা জানিয়ে অবশেষে তিনি বিধান নগর দক্ষিণ থানা অভিযোগ দায়ের করেন। বৃদ্ধের অভিযোগের ভিত্তিতে প্রতিবেশীর সৌগত মিশ্রকে গ্রেফতার করে বিধান নগর থানার পুলিশ। বুধবার অভিযুক্তকে বিধাননগর আদালতে তোলা হবে বলে জানা যায় । তারপর আদালতে আবেদন জানানো হবে ওই অভিযুক্তকে পুলিশি হেফাজতে নেওয়ার জন্য। এই প্রতারণা চক্রের সঙ্গে আর কেউ যুক্ত রয়েছে কিনা সে বিষয়েও তদন্ত করবে পুলিশ।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories