Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

বঙ্গ নারীদের হাতের কাজে সাজলো মৃন্ময়ী মেলা ! রয়েছে হাজারো চমক

1 min read

।। প্রথম কলকাতা ।।

কিছুদিন আগেই বাংলার দুর্গাপুজো হেরিটেজ তকমা পেয়েছে ইউনেস্কোর তরফ থেকে। এই সংবাদ ছিল বাঙালির কাছে অত্যন্ত গর্বের। এবার সেই বিষয়কে কেন্দ্রে রেখে ‘বাংলার দুগ্গা’ কমিটির পক্ষ থেকে আয়োজন করা হলো ‘মৃন্ময়ী মেলা’র। ‘বাংলার দুগ্গা’ হলো একটি মহিলা পরিচিত দুর্গাপুজো কমিটি মঞ্চ। এখানে যুক্ত রয়েছে প্রায় ৬০টি মহিলা পরিচালিত দুর্গাপুজো কমিটি। উত্তর থেকে দক্ষিণ বঙ্গের মধ্যে বহু মহিলা সদস্য এই কমিটির সাথে যুক্ত।

‘বাংলার দুগ্গা’ নামক এই সংস্থার তরফ থেকে মৃন্ময়ী মেলার আয়োজন ২০২২ সালে তৃতীয় বর্ষে পদার্পণ করল। তৃতীয় বর্ষের এই মেলার উদ্বোধন হল ৮ই ফেব্রুয়ারি দুপুর ৩ টের সময়। এই মেলার আয়োজন করা হয়েছে রাসবিহারী এ্যাভিনিউর ত্রিকোণ পার্কে। সুন্দর মেলাটির আয়োজনে সহযোগিতা করেছে পশ্চিমবঙ্গ সরকারের বিভিন্ন দপ্তর এবং সমন্বয় করেছে গড়িয়াহাট হিন্দুস্থান ক্লাব দুর্গাপুজো কমিটি।

আপনি চাইলেই একটু হাতে সময় করে এই মেলায় ঘুরে আসতে পারেন । রয়েছে বিভিন্ন স্বনির্ভর গোষ্ঠীর মহিলাদের হাতের তৈরি নানা জিনিসের সম্ভার। বেশির ভাগ জিনিস মহিলাদের নিজের হাতে তৈরি। এমনকি আপনি মেলায় পেয়ে যাবেন কেমিক্যাল ফ্রি পারফিউম। স্বয়ংসিদ্ধা , আনন্দধারার মত নানান স্বনির্ভর গোষ্ঠী তাদের সুন্দর হাতের কাজ নিয়ে পসরা সাজিয়েছে এই মেলায়। এই মেলার মাধ্যমে বার্তা দিতে চাওয়া হয়েছে সারা বিশ্ববাসীকে। বাঙালির দুর্গাপুজো হেরিটেজ তকমা পাওয়া, আসলে এক বিরাট স্বীকৃতি, এটি মৃন্ময়ী মায়ের স্বীকৃতি। এই মেলার আয়োজকরা তাই অভিনব ভাবে ধন্যবাদ দিতে চান মুখ্যমন্ত্রীকে।

এই মেলার উদ্বোধন করা হয় মৃন্ময়ী মায়ের আরাধনার মাধ্যমে। চারিদিকে আলপনার মাঝে বসানো ছিল মৃন্ময়ী মায়ের মূর্তি, তার উপরেই দেওয়া হয় মাটির প্রলেপ। তারপর একে একে মহিলারা স্নান করান মাকে। বহু ঢাকি এই দিন উপস্থিত ছিলেন, এমনকি বহু মহিলা সার বেঁধে দাঁড়িয়ে ঢাক বাজান। কেউ বা পরেছিলেন হলুদ শাড়ির সঙ্গে লাল জামা, আবার অনেকে হলুদ শাড়ির সঙ্গে সবুজ জামা। সব মিলিয়ে মেলার পরিবেশ অপরূপ দৃশ্য ধারণ করে। এই মেলা এখন প্রায় এক মাস ধরে চলবে। মেলা প্রাঙ্গণে দূর-দূরান্ত থেকে বহু শিল্পী উপস্থিত হয়েছেন। আর এই মেলার মূল উদ্যোক্তা হিসেবে রয়েছেন বাংলার দুগ্গা কমিটি মঞ্চের সভানেত্রী শ্রীমতি চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়া

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories