Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

ফের হদিশ ভেজাল কারবারের, বাজেয়াপ্ত বিপুল পরিমাণ সরষের তেল

।।প্রথম কলকাতা।।

রমরমিয়ে চলছে ভেজাল তেলের ব্যবসা। ভোজ্য সরষের তেলের সঙ্গে মেশানো হচ্ছে ভেজাল। তারপর সেই গুলি সরবরাহ করা হচ্ছে শহরতলীর বিভিন্ন দোকানে। সাধারণ মানুষ খাঁটি সরষের তেল ভেবে কিনছেন সেগুলি। কিন্তু তাদের শরীরে কী পরিমান ক্ষতি করছে এই ভেজাল ভোজ্যতেল তার কোনো ধারনাই নেই তাদের। এবার গোপন সূত্রে খবর পেয়ে কলকাতা পুলিশের এনফোর্সমেন্ট ব্রাঞ্চ গিয়ে হানা দিল হাওড়ার ভেজাল তেলের কারখানায়। সেখান থেকে উদ্ধার করা হয় বিপুল পরিমাণ ভেজাল ভোজ্য সরষের তেল।

জানা যায়, ডোমজুড় থানা এলাকার জালাল কমপ্লেক্স এর এক নম্বর গেটের কাছে ‘আরতি’ নামে একটি তেল প্রস্তুতকারী সংস্থার কারখানা রয়েছে। যেখানে এই ভোজ্য তেলের সঙ্গে ভেজাল মেশানোর কাজ করা হয়। সোমবার দুপুরে ইবি গোপন সূত্রে খবর পেয়ে হানা দেয় সেখানে। ওই কারখানা থেকে গ্রেফতার করা হয় বেশ কয়েকজন কর্মচারীকে। সাথে উদ্ধার করা হয় কয়েক হাজার টিন ভেজাল ভোজ্যতেল। এছাড়াও কয়েক টন সরষের তেল উদ্ধার করা হয় ওই কারখানাটি থেকে।

কলকাতা পুলিশের এনফোর্সমেন্ট ব্রাঞ্চের সূত্রে জানা যায়, ভোজ্য ভেজাল তেলের কাণ্ডে বেশ কয়েকমাস আগে কলকাতার চেতলার কাছে একটি অয়েল মিলে হানা দেওয়া হয়েছিল। সেখান থেকে উদ্ধার করা হয় কয়েক টন ভেজাল সরষের তেল। সেগুলি পরীক্ষা করার জন্য পরীক্ষাগারে নিয়ে গেলে জানা যায় সেই তেলের মধ্যে মেশানো হচ্ছিল এতদিন ধরে রাইস ব্যান অয়েল। যা সাধারণত মানুষের শরীরে বিভিন্ন ধরনের রোগ সৃষ্টি করতে পারেন। এছাড়াও ভেজাল মেশানো যে কোনো জিনিসের ক্ষেত্রেই আইন বিরুদ্ধ। ওই ঘটনার তদন্তে নামে ইনভেস্টিগেশন অফিসাররা। সেই সূত্রেই তাঁরা খোঁজ পান নরেন্দ্রপুরের এক ডিস্ট্রিবিউটরের।

নরেন্দ্রপুর থেকেও উদ্ধার করা হয় ভেজাল তেল। সাথে সেখানে তদন্ত চালাতেই পুলিশের কাছে এই আরতি সংস্থাটির নাম উঠে আসে। তারপর পুলিশ হানা দেয় এখানে। জানা যায়, দীর্ঘদিন ধরে এই কারখানায় অন্য কোম্পানির ভোজ্য তেল নিয়ে আসা হয় এবং তারপর ভেজাল মেশানো হয়। নিজেদের সংস্থার নাম দিয়েই ওই ভেজাল ভোজ্যতেল পৌঁছে দেওয়া হয় কলকাতা এবং তাঁর সংলগ্ন বিভিন্ন জেলাগুলির বাজারে। রমরমিয়ে বিক্রিও চলে তাঁর। তবে ভেজাল তেলের কাণ্ডে ইবির তৎপরতায় পর্দা ফাঁস হল আজ।

যদিও এই ঘটনার তদন্তে নেমেছে ইনভেস্টিগেশন অফিসাররা। এই কারখানা থেকে যে সকল কর্মীদেরকে গ্রেফতার করা হয়েছে তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে। সাথে খোঁজ চালানো হবে কারখানার মালিকের। কোথা থেকে ওই তেল নিয়ে আসা হতো এবং কী ধরনের ভেজালেই তেলের মধ্যে মেশানো হতো সেই সকল বিষয় খতিয়ে দেখছে তদন্তকারী পুলিশ।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়া

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories