Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

গীতশ্রী সন্ধ্যা মুখোপাধ্যায়কে পুরস্কারের নামে প্রহসন ! প্রতিবাদী বৈঠক প্রেসক্লাবে

1 min read

।। প্রথম কলকাতা ।।

গীতশ্রী সন্ধ্যা মুখোপাধ্যায়ের বয়স এখন প্রায় ৯০ বছর , তিনি অসুস্থও রয়েছেন। প্রজাতন্ত্র দিবসের আগের দিন রাতে অর্থাৎ মঙ্গলবার কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে তাঁর কাছে ফোন আসে। তাঁকে পদ্মশ্রী পুরস্কারের প্রস্তাব জানানো হয়। কিন্তু তিনি তৎক্ষণাৎ সেই ফোনেই ফিরিয়ে দেন অর্থাৎ সেই প্রস্তাব নাকচ করে দিয়েছিলেন। তিনি শেষ মুহূর্তে এই পুরস্কার প্রাপ্যতার সংবাদ পেয়ে একটু হলেও অপমানিত বোধ করেছেন।

সন্ধ্যা মুখোপাধ্যায়ের যিনি ৪০-এর পরবর্তী বাংলা সিনেমার গানের ক্ষেত্রে একদম প্রথম তালিকায় ছিলেন। যাঁর গান আজও সমানভাবে জনপ্রিয়। প্রায় সাত দশকের বেশি যিনি আমাদের গান উপহার দিয়েছেন। এখন তিনি জীবনের সায়াহ্নে উপস্থিত। এখনই কি সরকারি তরফ থেকে মনে পড়ল পুরস্কার প্রদানের কথা ? এ নিয়ে বাংলা শিল্পমহল থেকে উঠছে নানান প্রশ্ন। সন্ধ্যা মুখোপাধ্যায়কে পুরস্কার দেওয়ার নামে প্রহসনকে ধিক্কার জানিয়ে কলকাতার প্রেস ক্লাবে আয়োজন করা হয় একটি সাংবাদিক বৈঠকের। সেখানে উপস্থিত ছিলেন বাংলা শিল্পী মহলের গণ্যমান্য ব্যক্তিরা।

প্রেস ক্লাবে উপস্থিত কবীর সুমন জানান, গীতশ্রী সন্ধ্যা মুখোপাধ্যায় হলেন ওস্তাদ বড়ে গোলাম আলি খানের একমাত্র জীবিতা শিষ্যা। কবীর সুমন নিজের যৌবন কালে দেখেছিলেন, শ্রীমতি সন্ধ্যা মুখোপাধ্যায়কে পূর্ণ সময়ের জন্য পুরোদস্তুর খেয়াল গাইতে। পরবর্তীকালে বাংলা সিনেমার ক্ষেত্রে যে নতুন যুগ শুরু হয়েছিল সেখানে প্রধান গায়িকা ছিলেন তিনি। তিনি এই পুরস্কার নিয়ে প্রশ্ন তোলেন, একটা রাষ্ট্র পুরস্কার দেন কিসের ভিত্তিতে ? আসলে সেই বিষয়টি অনেকেই জানতে চান না।

প্রেস ক্লাবে উপস্থিত শিল্পী সুদেষ্ণা রায় জানান, পুরস্কার নামে প্রহসন করা হয়েছে। একজন নারী হিসেবে, একজন বাঙালি হিসেবে এবং সর্বোপরি দেশের মানুষ হিসেবে তার প্রতিবাদ করা উচিত। ” একজন মহিলা যিনি ৯০ বছর বয়সে এসে পৌঁছেছেন এবং সাত দশকের বেশি গান করছেন তাঁকে আজকে পদ্মশ্রী দেওয়া হল কেন ? …. ” তিনি মনে করেন যারা কেন্দ্রে আছেন অর্থাৎ যারা এই পুরস্কারের জন্য বিবেচনা করেন তারা আসলে কিছুই জানেন না। সুদেষ্ণা রায় এই ধরনের পুরস্কারকে নাড়ুর সাথে তুলনা করেছেন। তিনি মনে করেন ” বাঙালি ঐ রকম নাড়ু দিলে খুশি হয় না। যদি নাড়ু দিতে হয় তাহলে মিষ্টি নাড়ু দিন, এরকম তিক্ত নাড়ু নয়।”।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories