Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

ফের স্থানীয়দের বিক্ষোভের মুখে সাংসদ সুনীল মন্ডল, স্লোগান উঠল ‘গো ব্যাক’

।। প্রথম কলকাতা।।

দলবদলের পরেও দাবি, কখনও তৃণমূল কংগ্রেস ত্যাগ করেননি সুনীল মণ্ডল। কিন্তু তিনি এই দাবি করলেও সাধারণ মানুষ অতীত ভুলে যাননি। তাঁর নিদর্শন পেলেন বর্ধমান পূর্বের সাংসদ। বুধবার কাটোয়ার দু’নম্বর ব্লকের গাজীপুর পঞ্চায়েতের মালঞ্চা নামে একটি গ্রাম প্রদর্শনে যান তিনি। সেখানে ব্রাহ্মণী নদীর উপর সেতু তৈরির কাজ চলছে। যদিও শুরু হয়েছিল বহুদিন আগেই কিন্তু এখনও তা আটকা পড়ে রয়েছে। সেই সেতু নির্মাণের কাজ দেখতেই তিনি গিয়েছিলেন। কিন্তু সেখানে গিয়ে স্থানীয়দের বিক্ষোভের মুখোমুখী হন সুনীল মণ্ডল।

গাড়ি থেকে নামতেই তাকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন স্থানীয় বাসিন্দারা। রীতিমতন ‘চোর’, ‘বিজেপির দালাল’ এই সমস্ত স্লোগান তুলে তাকে এলাকাছাড়া করা হয়। যদিও তৃণমূল সাংসদকে ঘিরে স্থানীয়দের এহেন বিক্ষোভের ফলে অস্বস্তি তৈরি হয়েছে তৃণমূল কংগ্রেসের অন্দরেও। এ ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে সুনীল মণ্ডল নিজে জানিয়েছেন স্থানীয় বাসিন্দারা নয়, বেশ কিছু মাতাল নেশার ঘোরে এমন কাণ্ড ঘটায়। কিন্তু সমস্ত গ্রাম একসাথে নেশায় আসক্ত হওয়া সম্ভব নয়। তাই স্বাভাবিক ভাবেই বোঝা যাচ্ছে গ্রামবাসীদের আক্রোশের মুখে পড়ে এহেন অজুহাত দিয়েছেন তিনি।

যদিও এ বিষয়ে পূর্ব বর্ধমান জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি রবীন্দ্রনাথ চট্টোপাধ্যায় জানান, যদি এই ঘটনাটি সঙ্গে কোন তৃণমূলের কর্মী সদস্য যুক্ত থাকে তাহলে অবশ্যই তাঁর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। প্রসঙ্গত, বিধানসভা নির্বাচনের আগে বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন সুনীল মণ্ডল। যদিও বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপি ভালো ফল করতে পারেনি। তখন সুনীল মণ্ডলকে সংসদের তৃণমূল বিক্ষোভে দেখা গিয়েছিল। পরে যদিও তিনি পুরোপুরি অস্বীকার করেছিলেন যে তিনি কখনও তৃণমূল কংগ্রেস ত্যাগ করেন। তিনি নাকি চিরকালই তৃণমূলেরই ছিলেন। কিন্তু সাধারন জনগনের স্মৃতি এত দুর্বল নয় তাঁর প্রমাণ পেলেন তিনি নিজেই।

খবরে থাকুন, ফলো করুন আমাদের সোশ্যাল মিডিয়ায়

সব খবর সবার আগে, আমরা খবরে প্রথম

Categories