Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

সামনেই শীত , এই খাবার গুলি এড়িয়ে গেলেই মহাবিপদ !

1 min read

।। প্রথম কলকাতা ।।

সামনেই শীত, এরইমধ্যে রাতে হিম পড়তে শুরু করেছে। আবহাওয়া পরিবর্তনের কারণে ঘরে ঘরে দেখা দিয়েছে জ্বর , সর্দি, কাশি। শীতের সময় শরীরের তাপমাত্রা বজায় রাখতে কিংবা পুষ্টির ঘাটতি মেটাতে কিছু খাবার অবশ্যই খাদ্যতালিকায় রাখতেই হবে। কারণ এই বিশেষ খাবার গুলি শীতের সময় আমাদের শরীরের রোগ প্রতিরোধের ক্ষমতা বৃদ্ধিতে সাহায্য করে।

টক জাতীয় ফল

শীতে শরীরের ফাইবারের ঘাটতি মেটাতে অবশ্যই রোজ টক জাতীয় ফল খাবেন। এক্ষেত্রে কমলালেবু বা পেয়ারা খাদ্য তালিকায় রাখতে পারেন। পেয়ারাতে রয়েছে পটাশিয়াম এবং ম্যাগনেসিয়াম, অপরদিকে কমলা লেবু ভিটামিন-সি সমৃদ্ধ।

পালং শাক

শীতকালীন শাক সবজির মধ্যে পালংশাক এককথায় সুপার ফুড। অ্যান্টি অক্সিডেন্ট পরিপূর্ণ এই শাক ক্যান্সার প্রতিরোধী। এছাড়াও অতিরিক্ত মেদ ঝরিয়ে ওজন কমাতে এই শাকের জুড়ি মেলা ভার। এতে রয়েছে ভিটামিন এবং মিনারেল।

গরম গরম স্যুপ

শীতের আমেজে ধোঁয়া ওঠা চায়ের কাপে কিংবা স্যুপের বাটিতে চুমুক দিতে কার না ভালো লাগে। সেক্ষেত্রে আপনি সবজি, মাংস কিংবা ডিমের স্যুপ খেতে পারেন। এর ফলে শরীর গরম থাকবে এবং পুষ্টির চাহিদা মিটবে।

কাঁচা লঙ্কা ও পেঁয়াজ

শীতজনিত রোগ থেকে মুক্তি পেতে এই দুটি উপাদান অবশ্যই খাদ্যতালিকায় রাখুন। কাঁচালঙ্কা এবং পিঁয়াজের মধ্যে থাকা উপকারী উপাদান গুলি শীতকালীন নানান রোগ থেকে মানব দেহকে রক্ষা করে।

হলুদ

অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট পরিপূর্ণ হলুদ ঠান্ডা লাগা থেকে দ্রুত মুক্তি দেয়। তরকারি ছাড়াও প্রতিদিন যদি কাঁচা হলুদ খেতে পারেন তাহলে সর্দি-কাশির মত সমস্যা একেবারেই জীবন থেকে বিদায় নেবে।

মূল জাতীয় সবজি

মাটির নিচে থাকে অর্থাৎ শালগম, গাজর, বিট, মিষ্টি আলু প্রভৃতি সবজি রোগবালাই দূর করতে ওস্তাদ। ভিটামিন ও পুষ্টি উপাদানের সমৃদ্ধ এই সবজিগুলি রোগপ্রতিরোধের ক্ষমতা বাড়ায়। এর পাশাপাশি খারাপ কোলেস্টেরলের মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করে।

আদা চা

শরীরে উষ্ণতা বৃদ্ধি করতে প্রতিদিন শীতকালে সকালে আদা চা খেতে পারেন। এক্ষেত্রে চেষ্টা করবেন চিনির পরিমাণ অল্প ব্যবহার করার।

শিম

যারা আমিষ খাবার একটু এড়িয়ে যেতে পছন্দ করেন , তাদের ক্ষেত্রে শীতকালীন এই সবজিটি অত্যন্ত উপকারী। প্রোটিন, ফাইবার এবং ভিটামিন সমৃদ্ধ শিম শরীরের পুষ্টির ঘাটতি পূরণ করতে সাহায্য করে।

News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন প্রথম কলকাতা অ্যাপ