Prothom Kolkata

Popular Bangla News Website

বিজেপি ছিল ,আছে থাকবে, অভিষেককে পাল্টা দিলেন শমীক

1 min read

।। প্রথম কলকাতা ।।

আজকের সভায় অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় বলেছিলেন নির্বাচনের সময় বহিরাগতরা এসেছিলেন এখন আর তাদের দেখা যায় না। এই প্রসঙ্গে আজ সাংবাদিক বৈঠকে বিজেপি নেতা শমীক ভট্টাচার্য বলেন বিজেপি ছিল বিজেপি আছে বিজেপি থাকবে। দুই থেকে তিনশো তিনে পৌঁছেছে। আত্মসমর্পণ না করে কংগ্রেসের গর্ভ থেকে জন্ম না নিয়ে কোনো দলকে না ভেঙে আমরা যেখানে আছি সেখানেই থাকবো। গোয়ায় যাচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়‌।আজ উপনির্বাচনের প্রচারে বেড়িয়ে বিভিন্ন জায়গায় অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় বলেছেন বিভিন্ন রাজ্যে এইবার তৃণমূল কংগ্রেস আসবেই।অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় হুংকার দিয়েছেন যেখানে বিজেপি’র সেখানেই তৃণমূল কংগ্রেস যাবে। এই প্রসঙ্গে শমীক ভট্টাচার্য বলেন এটা বাণিজ্যিক ভাষা। এটা ঠিক রাজনীতির ভাষা নয়।

বড় কোনো কোম্পানির বিভিন্ন রকম শব্দবন্ধ তৈরি করে। এগিয়ে থাকে এগিয়ে রাখে।প্রথম থেকে প্রথমে এ ধরনের শব্দ আমরা বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠানের ক্ষেত্রে শুনে থাকি।এটা রাজনীতির ভাষা নয় এভাবে কোনো রাজনৈতিক দলের অগ্রগতি হয় না। এছাড়া অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় আজ বলেছেন এবারের উপনির্বাচনে 4-0 হবে বিজেপি‌। তিনি বলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ভবিষ্যতে দেশের নেত্রী হতে চলেছে। শমীক ভট্টাচার্য বলেন কেউ কারো্র নিজের নেত্রীর সম্পর্কে স্লোগান দিতে পারেন এর মধ্যে কোনো অবাক হওয়ার কিছু নেই। আজ ডিজেলের দাম ১০০ টাকা পেরিয়ে গেল।আজ প্রচার সভায় অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন সরষের তেলের দাম যা তা চোখে ঝাঁঝ লাগছে। এটা কি আচ্ছে দিনের নমুনা প্রশ্ন তুলেছিলেন তিনি।

শমীক ভট্টাচার্য বলেন পেট্রোল-ডিজেলের দাম বেড়েছে মানুষ অস্বস্তিতে আছে কাঙ্ক্ষিত নয়। দল হিসেবে আমরাও কেন্দ্রীয় সরকারকে বলেছি অবিলম্বে ব্যবস্থার পরিবর্তন প্রয়োজন। মানুষ তাদের ক্ষোভ দেখাচ্ছে। তিনি বলেন রাজ্য সরকার জিএসটির ক্ষেত্রে কি ভূমিকা পালন করেছে।২০১৭ সানি অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি বলেছিলেন পেট্রোলিয়াম পণ্য জিএসটির আওতায় আনতে। রাজ্য সরকার আগে নিজেদের ভূমিকা ঠিকভাবে পালন করুক। মনে রাখতে হবে আমাদের দেশ ১৩৫ কোটি মানুষের দেশ। ভারত সরকারের প্রত্যেকটি প্রজেক্ট চলছে। করোনাকালে মানুষকে ফ্রি রেশন দেওয়া হয়েছে।১০০ কোটি ভ্যাক্সিনেশন হয়েছে। একটা দায়িত্বশীল বিরোধিতা হোক। সমন্বয়ের মধ্য দিয়ে পেট্রোল-ডিজেলের দাম কমুক এমনটাই বিজেপি চাইছে।

News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন প্রথম কলকাতা অ্যাপ

Categories